‘বাংলা ব্লকেড’

সড়কে গাড়ি ফেলে হেঁটে-সিএনজিতে সংসদে গেলেন ইইউ রাষ্ট্রদূত

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১০ জুলাই ২০২৪, ১৯:১৭

সরকারি চাকরিতে কোটা ব্যবস্থা বাতিল করে ২০১৮ সালে জারি করা পরিপত্র পুনর্বহালের দাবিতে বুধবার রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশে সকাল-সন্ধ্যা ‘বাংলা ব্লকেড’ নামে সড়ক অবরোধ করেছেন শিক্ষার্থী। সকাল ১০টার পর থেকে কার্যত অচল ছিল পুরো ঢাকা শহর। আর এতে করে সাধারণ মানুষের মতো ভোগান্তিতে পড়েছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) বিদায়ী রাষ্ট্রদূত চার্লস হোয়াইটলি। 

আজ বুধবার জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে যাওয়ার পথে সড়কে ভোগান্তির শিকার হন ইইউ রাষ্ট্রদূত। 

স্পিকারের সঙ্গে সাক্ষাৎ শেষে এক্স হ্যান্ডেলে (সাবেক টুইটার) এ সংক্রান্ত দুটি পোস্ট করে নিজের ভোগান্তির কথা তুলে ধরেন ইইউ রাষ্ট্রদূত। পোস্টের ক্যাপশনে রাষ্ট্রদূত লিখেছেন, ‘আমরা প্রতিবাদের (কোটা সংস্কার আন্দোলন) কারণে এক্সপ্রেসওয়েতে গাড়িটি ছেড়ে দিয়েছি। সিএনজি ব্যবহার করে মাননীয় স্পিকারের ডাকে সাড়া দিয়েছি।’

ভিডিওতে দেখা যায়, ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে থেকে তিনি হেঁটে নিচে নামছেন। এরপর সিএনজিচালিত অটোরিকশায় সংসদ ভবনে পৌঁছান। 

ভিডিওতে আরও দেখা যায়, ইইউ রাষ্ট্রদূত ও তার সহকারী ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়েতে নিজেদের গাড়ি থেকে নেমে হাঁটতে শুরু করেন। একপর্যায়ে তার সহকারী এক্সপ্রেসওয়ের দুই ডিভাইডারের ওপর দিয়ে হাঁটতে থাকেন। এরপর নিচে নেমে তারা একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশায় উঠেন।

স্পিকার ড. শিরীন শারমিনের সঙ্গে রাষ্ট্রদূতের এ সাক্ষাৎ পূর্বনির্ধারিত ছিল। স্পিকারের সঙ্গে সাক্ষাতের বিষয়ে অন্য একটি পোস্টে রাষ্ট্রদূত লিখেছেন, স্পিকারের সঙ্গে বিদায়ী সাক্ষাৎ পেয়ে আনন্দিত। বাংলাদেশ ও ইইউয়ের সম্পর্ক নিয়ে আলোচনা করেছি।

এবিএন/এসএ/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ