মধুচন্দ্রিমা শেষে দেশে ফিরেই নতুন ছবিতে চুক্তিবদ্ধ হচ্ছেন পূর্ণিমা

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ০৫ আগস্ট ২০২২, ১০:২৭

সবশেষ ২০১৪ সালে পূর্ণিমা অভিনীত সিনেমা ‘লোভে পাপ, পাপে মৃত্যু’ মুক্তি পায়। মাঝে পেরিয়ে গেছে ৮ বছর। এরপর ছোট পর্দা ও উপস্থাপনায় ব্যস্ত থাকলেও বড় পর্দায় দেখা যায়নি পূর্ণিমাকে।

আট বছর পর এবার নতুন একটি সিনেমায় চুক্তিবদ্ধ হতে চলেছেন পূর্ণিমা। সরকারি অনুদান পাওয়া ‘আহারে জীবন’ নামের চলচ্চিত্রটি নির্মাণ করবেন ছটকু আহমেদ। সিনেমাটিতে কেন্দ্রীয় চরিত্রে অভিনয় করবেন পূর্ণিমা। হানিমুন থেকে ফিরে সিনেমাটির নির্মাতা ছটকু আহমেদকে শিডিউল দেবেন বলেও জানিয়েছেন তিনি।

এ প্রসঙ্গে নির্মাতা ছটকু আহমেদ জানান, সিনেমার নায়ক হিসেবে চঞ্চল চৌধুরী ও মোশাররফ করিমের সঙ্গে আলোচনা হয়েছে। তবে এখনো কাউকে চূড়ান্ত করেননি। পূর্ণিমার সঙ্গে দুজনের একজনকে পেলেই আমার গল্পটা পূর্ণতা পাবে। এছাড়া গল্পের প্রয়োজনেই নায়িকা হিসেবে পূর্ণিমা আমার প্রথম পছন্দ।

উল্লেখ্য, গত ২৭ মে দ্বিতীয় বারের মতো বিয়ের পিঁড়িতে বসেন পূর্ণিমা। বিয়ের দুই মাসের মাথায় ২১ জুলাই খবরটি সংবাদমাধ্যমে প্রকাশ করেন তিনি। পাত্র আশফাকুর রহমান রবিন পেশায় একটি বহুজাতিক কোম্পানির মার্কেটিং বিভাগের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা। দুই পরিবারের সম্মতিতেই বিয়ে হয়েছে তাদের। বর্তমানে আশফাকুর রহমান রবিনের সঙ্গে রাজধানীর একটি অভিজাত এলাকায় বসবাস করছেন পূর্ণিমা।

গত ২৮ জুলাই বর আশফাকুর রহমানকে নিয়ে মধুচন্দ্রিমায় থাইল্যান্ড গিয়েছেন পূর্ণিমা। দু-এক দিনের মধ্যেই ঢাকায় ফিরবেন তারা।

এর আগে ২০০৭ সালের ৪ নভেম্বর আহমেদ জামাল ফাহাদের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন পূর্ণিমা। ২০১৪ সালে কন্যাসন্তানের মা হন তিনি। জানা যায়, বছর তিনেক আগে বিচ্ছেদ হয় তাদের। কিন্তু কি কারণে বিচ্ছেদ হয়েছে তা কখনো জানাননি এ অভিনেত্রী।

এবিএন/শংকর রায়/জসিম/পিংকি

এই বিভাগের আরো সংবাদ