বেড়া পৌরসভা নির্বাচনের তফসিল ঘোষনা : উৎসবে আ.লীগ,হতাশায় বিএনপি

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৫ অক্টোবর ২০২১, ১৮:৪৯ | আপডেট : ১৫ অক্টোবর ২০২১, ১৯:০৪

পৌরসভা সহ তৃতীয় ধাপের ইউপি নিবাচনের তফসিল ঘোষনায় আগামী ২৮ নভেম্বর ১০টি পৌরসভা নির্বাচন,এর মধ্যে পাবনার বেড়া পৌরসভা অন্তভুক্ত থাকায় বেড়ায় নিবার্চনী প্রচার প্রচারনায় মুখর হয়ে উঠেছে। বর্তমানে দেশে পৌরসভা ও ইউপি নির্বাচন চলমান রয়েছে। ধাপে ধাপে নির্বাচনী তফশিল ঘোষনা হওয়ায় সারা দেশের ন্যায় পাবনার বেড়া উপজেলায় সর্বত্র ভোটের হাওয়া বিরাজমান ছিল। পৌর মেয়র এবং কাউন্সিলার পদে নিজের প্রার্থীতা পৌরবাসীর কাছে তুলে ধরতেদোয়া প্রার্থী হয়ে ইতিমধ্যেই পাড়া মহল্লায় রঙিন পোষ্টার লাগানো হয়েছে। প্রাক্ নির্বাচনী প্রচারনায় পোষ্টারিং,মোটর সাইকেল শো-ডাউন সহ ভোটারদের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় চলছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার তফশিল ঘোষনা হওয়ার পর ক্ষতাসীন দল আ.লীগের নেতা-কর্মী ও আ.লীগ সমর্থিত ভোটারদের মধ্যে ভোটের আমেজে চরম উৎসাহ উদ্দীপনা দেখা দিয়েছে। বিএনপি নির্বাচনে অংশ গ্রহন না করার সিদ্ধান্ত নেওয়ায় নিরব ভুমিকা পালন করছে বেড়া বিএনপি ও বিএনপির অঙ্গ সংগঠনের নেতা কর্মী ও সর্মথকেরা।

বেড়া পৌরসভা ও উপজেলার ৯টি ইউনিয়নে ক্ষমতাসীন দল আ.লীগ হতে মেয়র ও কাউন্সিলার পদের সম্ভাব্য প্রার্থীর ছড়াছড়ি। ইতোমধ্যে সম্ভাব্য প্রায় প্রার্থীরাই নিজের ছবি সম্বলিত পোষ্টার, লিফলেট, বিলবোর্ড তৈরী করে বিভিন্ন স্থানে বিতরণ, লাগানো সহ নেতা-কর্মী সমর্থিত লোকদের নিয়ে বিভিন্ন স্থানে গণসংযোগ করা সহ বিভিন্ন যায়গায় শো-ডাউন শুরু করে দিয়েছেন। সম্ভাব্য প্রার্থীরা দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার আশায় তৃণমূল থেকে শুরু করে আ.লীগের হাইকমান্ড নেতাদের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করে চলছেন।

অপরদিকে দীর্ঘদিন ক্ষমতার বাইরে থাকা এবং দেশের চলমান স্থানীয় সরকারের নির্বাচন সহ এ সকারের অধীনে সব ধরণের নির্বাচনে অংশগ্রহণ না করার বিএনপির হাইকমান্ড এর সিদ্ধান্তের কারণে বেড়া উপজেলায় বিএনপি নেতা-কর্মীদের মাঝে চরম হতাশা বিরাজ করছে। বেড়া পৌরসভার নির্বাচনী তফসিল ঘোষনায় আ.লীগ নেতা-কর্মী ও সর্মর্থিত লোকজন যখন কে প্রার্থী হচ্ছেন, কে দলীয় মনোনয়ন পেতে পারেন এ বিষয় নিয়ে হাট-বাজার, চায়ের দোকানে আলাপ-আলাচনা, জল্পনা-কল্পনা শুরু হলেও বিএনপি নির্বাচনের না যাওয়ার কারণে তাদের নেতা-কর্মী ও সমর্থকরা মনমরা হয়ে হতাশায় ভুগছেন।

নির্বাচনে বিএনপি অংশগ্রহণ না করায় নেতা-কর্মীদের মধ্যে হতাশা বিরাজ করা প্রসংগে পৌর বিএনপির একাধিক নেতা-কর্মীর সাথে আলাপ করলে অনেকেই ভোটে অংশগ্রহণ না করার হাইকমান্ডের সিদ্ধান্তের বিষয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, এ সরকারে অধীনে দল নির্বাচনে যাবে না এবং দলের কেউ যদি সিদ্ধান্ত অমান্য করে নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে অংশগ্রহণ করে তাকে সাংগঠনিকভাবে কোন প্রকার সহযোগিতা করবে না। আবার দলের সিদ্ধান্ত অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে দল কোন শাস্তিমূলক ব্যবস্থাও গ্রহণ করবে না। এ ধরণের সিদ্ধান্তে বিএনপির নেতা-কর্মী ও বিএনপি ভাবাপন্ন ভোটাররা দ্বিধাদ্বন্দে ভুগছেন। আবার অনেকেই এ ধরণের সিদ্ধান্তে বিএনপি হাইকমান্ডের প্রতি বিরুপ মন্তব্য করেছেন। নির্বাচন মুখি বেড়া পৌর সভার ভোটারা মেয়র,কাউন্সিলার নির্বাচিত করতে মুখিয়ে আছেন।
 

এবিএন/নির্মল সরকার/জসিম/তোহা

এই বিভাগের আরো সংবাদ
ksrm