বেনাপোল দিয়ে গত ৭ দিনে ফিরেছেন ৪৪৬ বাংলাদেশি

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৩ জুন ২০২১, ২১:২২

ভারত ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞায় আটকা পড়া বাংলাদেশি পাসপোর্ট যাত্রীর সংখ্যা কমতে শুরু করেছে। কলকাতায় নিযুক্ত বাংলাদেশি উপ-হাইকমিশনথেকে এনওসি নিয়ে গত এক সপ্তাহে ৪৪৬ জন পাসপোর্ট যাত্রী বেনাপোল চেকপোস্ট ইমিগ্রেশন দিয়ে দেশে ফিরেছেন।

অপরদিকে এক সপ্তাহে বাংলাদেশে আটকা পড়াদের মধ্যে ১৮৫ জন পাসপোর্ট যাত্রী ভারতে ফিরে গেছেন। রবিবার (১৩ জুন) বিকাল ৩টা পর্যন্ত ভারত থেকে বাংলাদেশি পাসপোর্ট যাত্রী দেশে ফিরেছেন ৪৪ জন। ভারতে ফিরে গেছেন ৩১ জন।

বেনাপোল ইমিগ্রেশনের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আহসান হাবিব বলেন, বাংলাদেশ সরকার ভারতের করোনার নতুন ধরনের সংক্রমণ রোধে গত ২৬ এপ্রিল থেকে ভারত ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা জারি করে। এতে করে ভারতে আটকা পড়ে কয়েক হাজার বাংলাদেশি পাসপোর্ট যাত্রী। সেসব আটকা পড়া পাসপোর্ট যাত্রীদের নিজ দেশে ফিরতে হলে কলকাতায় নিযুক্ত বাংলাদেশি উপ-হাইকমিশন থেকে এনওসি নিয়ে ও ৭২ ঘণ্টার মধ্যে আরটিপিসিআর ল্যাবের করোনা টেস্টের সনদ নিয়ে দেশে ফেরার নির্দেশনা দেয় বাংলাদেশ সরকার।

সেই মোতাবেক গত এক সপ্তাহে ৪৪৬ জন বাংলাদেশি পাসপোর্ট যাত্রী দেশে ফিরেছেন এবং বাংলাদেশে আটকা পড়া ১৮৫ জন ভারতীয় পাসপোর্ট যাত্রী দেশে ফিরে গেছেন।তিনি আরও বলেন, ভারত থেকে আসা এসব পাসপোর্ট যাত্রীকে বেনাপোলে বিভিন্ন হোটেল, ঝিকরগাছা গাজিরদরগা এতিমখানায় ও যশোরের বিভিন্ন আবাসিকহোটেলের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে রাখা হচ্ছে। যেসব যাত্রী করোনায় আক্রান্ত বা উপসর্গ নিয়ে দেশে ফিরছেন তাদের যশোর ২৫০ শয্যা হাসপাতালে করোনা ইউনিটে পাঠানো হচ্ছে।জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, ভারতের নতুন ধরনের করোনা যাতে বাংলাদেশে ছড়াতে না পারে সেজন্য স্থলপথে পাসপোর্ট যাত্রী যাতায়াতে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে।

এ অবস্থায় গত সপ্তাহে ভারতে আটকা পড়া ৪৪৬ জন যাত্রী দূতাবাসের বিশেষ অনুমতি নিয়ে দেশে ফিরছেন।বেনাপোল চেকপোস্ট ইমিগ্রেশনের স্বাস্থ্য বিভাগের অফিসার ডা. আশরাফুজজামান বলেন, করোনা সংক্রমণ রোধে বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে ভারত ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা জারি রয়েছে। তবে যারা ভারতে আটকা পড়েছে শুধুমাত্র তারাই কলকাতায় নিযুক্ত বাংলাদেশি উপ-হাইকমিশন থেকে এনওসি নিয়ে দেশে ফিরছেন।

এছাড়া সেসব পাসপোর্ট যাত্রী দেশে ফিরছেন তাদের বাধ্যতামূলক বেনাপোল ও যশোরে কয়েকটি আবাসিক হোটেল, ঝিকরগাছার গাজিরদরগা এতিমখানায়, নড়াইল ও খুলনায় বিভিন্ন হোটেলের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে রাখা হচ্ছে। ভারত থেকে আসা করোনায় আক্রান্তদের ১৮ জন রোগীকে যশোর করোনা ইউনিটে ভর্তি করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

এবিএন/ইয়ানূর রহমান/জসিম/জুয়েল

এই বিভাগের আরো সংবাদ