কাশিমপুরে যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে মারধরের অভিযোগ

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১১ জুন ২০২১, ১১:৩০

গাজীপুরের কাশিমপুরে স্বামীর দাবি করা যৌতুকের টাকা না দেওয়ায় স্ত্রীকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার (১০ জুন) রাতে জিএমপি কাশিমপুর থানায় অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী ওই নারী।

আজ শুক্রবার (১১ জুন) সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জিএমপি কোনাবাড়ি জোনের সহকারী কমিশনার সুভাশীষ ধর।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, গত ১৫ জানুয়ারি তারিখে পারিবারিকভাবে গাজীপুরের কাশিমপুর থানাধীন দক্ষিণ বারান্ডা এলাকার মৃত. চান্দু কবিরাজের ছেলে নুরুল ইসলামের (২০) সঙ্গে একই গ্রামের দেলুয়ার হোসেনের মেয়ে বিউটি আক্তার মনির (১৮) বিয়ে হয়। বিয়ের দুই তিনদিন পর থেকেই বাবার বাড়ি থেকে টাকা এনে দেওয়ার জন্য বিউটির উপর নানাভাবে নির্যাতন চালাতেন স্বামী নুরুল ইসলাম। পরে টাকা দিতে না পারায় মারধর করে বাড়ি থেকে বের করে দেন নুরুল।

পরে সোমবার (৭ জুন) সন্ধ্যায় পারিবারিকভাবে শালিসি বৈঠক বসে। সেখানে সমাধান না হওয়ায় মঙ্গলবার (৮ জুন) সকালে ওই নারীর স্বামীসহ স্থানীয় সামাদ মোল্লা, মাকসুদা খাতুন ও রমিজা খাতুন বিউটিকে বেধরক মারপিট করে। পরে স্থানীয়রা বিউটিকে উদ্ধার করে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন। এ ঘটনায় বুধবার (৯ জুন) থানায় মামলা দায়ের করলে ওই নারী ও তার পরিবারকে হত্যার হুমকি দেওয়া হয়। এ বিষয়ে বৃহস্পতিবার (১০ জুন) রাতে জিএমপি কাশিমপুর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী বিউটি আক্তার মনি।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত নুরুল ইসলামকে মোবাইলে পাওয়া যায়নি, তার ভাতিজা আবু জাফর (নয়ন) মুঠোফোনে জানান, কয়েকজন লোক মারধর করেছে। তার চাচা কাছে ছিলো না বলে জানান তিনি।

স্থানীয় মাতাব্বর ঈদ্রিস মোল্লা জানান, স্বামী-স্ত্রীর সঙ্গে মনোমালিন্য থাকায় সামাজিকভাবে বসে সমাধান করে দেওয়া হয়েছে। মারামারির বিষয়ে তিনি অবগত নন বলেও জানান।

সুভাশীষ ধর জানান, এ বিষয়ে কাশিমপুর থানায় একটি অভিযোগ হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
 

এবিএন/জসিম/তোহা

এই বিভাগের আরো সংবাদ