আজকের শিরোনাম :

শব্দ করে পড়ার বৈচিত্রময় গুরুত্ব বিশ্বকে বুঝতে হবে : রূপক সিংহ

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২২ জুন ২০২২, ১৭:১৯

বিশ্বব্যাপী শব্দ করে পড়া নিয়ে কাজ করা সংগঠনগুলোর মধ্যে অন্যতম ‘রিড অ্যালাউড - ফিফটিন মিনিটস’ এর উদ্যোক্তাদের আমন্ত্রণে শব্দ করে পড়া বিষয়ক সম্মেলনে যোগদান করেছেন বাংলাদেশের শব্দ করে পড়া বিষয়ক একমাত্র সংগঠন রিড অ্যালাউড বিডির প্রতিষ্ঠাতা রূপক সিংহ। ‘রিড অ্যালাউড (ফিফটিন মিনিটস) -  Read Aloud 15 MINUTES’ যুক্তরাষ্ট্রের এই সংগঠনটিই মূলত প্রথমে রিড অ্যালাউডের গুরুত্ব নিয়ে কাজ করা শুরু করেন। পরবর্তীতে এটি বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়ে।

১৯ জুন যুক্তরাষ্ট্রের সিনসিনাটিস্থ ‘রিড অ্যালাউড - ফিফটিন মিনিটস’ এর কার্যালয়ে এই সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সম্মেলনে উপস্থিত হয়ে রিড অ্যালাউড বিডির প্রতিষ্ঠাতা রূপক সিংহ বলেন, শব্দ করে পড়ার বৈচিত্র্যময় গুরুত্ব আগামীর বিশ্বকে বুঝতে হবে, জানতে হবে এবং শিশুদের জন্য সময়োপযোগী সিদ্ধান্ত নিতে হবে। এসময় বিশ্বব্যাপী শব্দ করে পড়ার গুরুত্ব নিয়ে যৌথভাবে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করা হয়।

উক্ত সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, ‘রিড অ্যালাউড (ফিফটিন মিনিটস) - Read Aloud 15 MINUTES’ স্কুলের নির্বাহী পরিচালক কেন্ডল ব্রায়েন, পরিচালক জন মরকেল, রিড অ্যালাউড বাংলাদেশের অ্যাডভাইজর ও জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য দূর্গাদাস ভট্টাচার্যসহ যুক্তরাষ্ট্র ও বাংলাদেশের রিড অ্যালাউড পরিবারের অনেকেই।

সম্মেলনে আগামী প্রজন্মকে শব্দ করে পড়ার গুরুত্ব বুঝাতে উদ্যোগ নেওয়া হবে বলেও অঙ্গিকার করেন উদ্যোক্তরা।

মুঠোফোনে রিড অ্যালাউড বিডির প্রতিষ্ঠাতা রূপক সিংহ এই প্রতিবেদককে বলেন, “শিশুর পারিবারিক ও সামাজিক বিকাশে শব্দ করে পড়ার অভ্যাস গড়ে তোলার কোনো বিকল্প নেই। এতে বাচ্চাদের জড়তা দূর হয় ও তারা নিজেকে যথাযথভাবে উপস্থাপন করতে শেখে। শিশুর শারীরিক, মানসিক বিকাশ নির্ভর করে শিশু শিক্ষার ওপরে। মায়ের সাথে সন্তানের সর্ম্পক যেমন অবিচ্ছেদ্য। শিক্ষার্থীর সাথে শব্দ করে পড়ার সম্পর্কও তেমনি অবিচ্ছেদ্য। অতএব শব্দ করে পড়ার কোনো বিকল্প নেই।

তিনি বলেন, আজকে এখানে যে সম্মেলনটি হচ্ছে সেটা আগামীতে আরো অনেক দেশে হবে। এটার গুরুত্ব বিশ্বকে বুঝতে হবে। সবাই এক সাথে কাজ করতে হবে। আমি বাংলাদেশে এটি নিয়ে কাজ করছি একক প্রচেষ্টায়। সরকারি বা বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের সহযোগিতা পেলে আমি আরো ভালোভাবে এটি নিয়ে কাজ করতে পারবো।

এবিএন/আব্দুর রাজ্জাক/জসিম/এআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ