কৃষিজমি ও সম্পদের সর্বোচ্চ ব্যবহার নিশ্চিত করুন: তাজুল ইসলাম

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২৭ নভেম্বর ২০২২, ২১:১০

পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় খাতে উল্লেখযোগ্য অবদান রাখায় ২০ ব্যক্তি পেলেন ড. আখতার হামিদ খান পল্লী ও সমবায় উন্নয়ন পদক। ২০২০ ও ২০২১ সালের জন্য এ পদক দেওয়া হয়েছে।

রোববার রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে তাঁদের হাতে পদক তুলে দেন স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায়মন্ত্রী তাজুল ইসলাম ও প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য। জাতীয় পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় ফেডারেশনের ৩৫তম বার্ষিক সাধারণ সভায় এ পদক তুলে দেওয়া হয়।

মন্ত্রী তাজুল ইসলাম বলেন, আধুনিক বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে প্রযুক্তি কাজে লাগিয়ে পণ্য বিক্রির কৌশল রপ্ত করতে হবে। বৈশ্বিক বাজার ধরার জন্য কাজ করতে হবে। কৃষিজমি ও সম্পদের সর্বোচ্চ ব্যবহার নিশ্চিত করতে হবে।

২০২১ সালের পদকপ্রাপ্তরা হলেন- পটুয়াখালী সদরের মিজানুর রহমান মনির ও বাউফলের বীর মুক্তিযোদ্ধা শামসুল আলম, জামালপুরের মেলান্দহের মনিরুজ্জামান জুয়েল, মুন্সীগঞ্জের সিরাজদীখানের শেখ তাজুল ইসলাম পিন্টু, বাগেরহাটের ফকিরহাটের শেখ কামরুজ্জামান কামরুল, হবিগঞ্জ সদরের আবদুল ওয়াহেদ আঞ্জব, দিনাজপুর সদরের খতিব উদ্দিন আহম্মেদ, কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামের মো. আলী আশ্বব, বগুড়ার শেরপুরের রফিকুল ইসলাম ও চট্টগ্রামের বাউফলের সুলতানুল আলম চৌধুরী।

২০২০ সালের পদক পেয়েছেন- গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ার বীর মুক্তিযোদ্ধা এস এম হুমায়ুন কবীর, কুমিল্লার লাকসামের তাবারক উল্যাহ কায়েস, নাটোর সদরের শরিফুল ইসলাম, সিরাজগঞ্জ সদরের নূরুল হক, নেত্রকোনার মোহনগঞ্জের জহিরুল আলম শেখ, দিনাজপুর ফুলবাড়ীর মশিউর রহমান, ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদরের আবু কাউসার, রাঙামাটি সদরের কনিকা চাকমা, সাতক্ষীরার দেবহাট্টার জাকির হোসেন এবং রাজশাহী বাগমারার মো. নাদিরুজ্জামান।

ফেডারেশনের সভাপতি খন্দকার বিপ্লব মাহমুদ উজ্জ্বলের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন সমবায় সচিব মশিউর রহমান, পল্লী উন্নয়ন বোর্ডের মহাপরিচালক সাহেদ আলী, সমবায় অধিদপ্তরের নিবন্ধক ও মহাপরিচালক ড. তরুণ কান্তি শিকদার ও বিআরডিবির সাবেক মহাপরিচালক আবদুল কাইয়ুম। সভা পরিচালনা করেন ফেডারেশনের সহসভাপতি মিজানুর রহমান মনির।
      
এবিএন/আব্দুর রাজ্জাক/জসিম/এআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ