ব্লকচেইন প্রযুক্তির মাধ্যমে ডিজিটাল সেবা দ্রুত পৌঁছে দেয়া যাচ্ছে : প্রতিমন্ত্রী পলক

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৯:১৮

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন ব্লকচেইন হচ্ছে বর্তমান বিশ্বকে পরিবর্তন করার “ফাউন্ডেশন টেকনোলজি”। বর্তমান সরকার তথ্যের স্বচ্ছতা ও নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে ব্লকচেইনের বহুমাত্রিক ব্যবহার শুরু করেছে। ইতোমধ্যেই জমির রেকর্ড, শিক্ষা সনদ, স্বাস্থ্য সেবা সংক্রান্ত তথ্যের নিরাপত্তা নিশ্চিত করায় ব্লকচেইন প্রযুক্তি ব্যবহার শুরু হয়েছে।

প্রতিমন্ত্রী আজ বিসিসি’র উদ্যোগে আগারগাঁওস্থ আইসিটি টাওয়ারে বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল মিলনায়তনে “ব্লকচেইন অলিম্পিয়াড বাংলাদেশ- ২০২১” উপলক্ষ্যে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন।

পলক বলেন ব্লকচেইন প্রযুক্তির মাধ্যমে আর্থিক লেন-দেনসহ জনগণের কাছে সরকারের ডিজিটাল সেবাগুলোকে স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা ও দ্রুত পৌছে দেয়ার যে সুযোগ সৃষ্টি হচ্ছে তা কাজে লাগাতে হবে। তিনি এ ডিসরাপটিভ টেকনোলজি দেশের তরুণ-তরুণীদের কাছে পৌছে দেয়ার মাধ্যমে চতুর্থ শিল্প বিপ্লবকে মোকাবেলা করার ওপর জোড় দেন।  

সংবাদ সম্মেলনে প্রতিমন্ত্রী বলেন ব্লকচেইন, ইন্টারনেট অব থিংস, রোবোটিকসের মতো ফ্রন্টিয়ার প্রযুক্তি সম্পর্কে ধারনা পেতে দেশে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ ও বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। যাতে ভবিষ্যত প্রজন্ম চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের উপযোগী দক্ষ মানুষ হয়ে গড়ে উঠতে পারে। সরকার ব্লকচেইন প্রযুক্তিভিত্তিক উদ্ভাবনী সমাধান তৈরিতে শিক্ষার্থী ও তরুণদের উৎসাহিত করছে, যাতে তা কৃষি, শিক্ষা, স্বাস্থ্যসহ অন্যান্য খাতে ব্যবহার করে সাশ্রয়ী সেবা প্রদান করা যায়। তিনি বলেন দেশের তরুণদের ব্লকচেইন টেকনোলজি সম্পর্কে বিস্তারিত ধারণা ও পারদর্শী করতে ব্লকচেইন অলিম্পিয়াডের আয়োজন অত্যন্ত সময়োপযোগী পদক্ষেপ বলে তিনি উল্লেখ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, ২৫-২৭ ফ্রেব্রুয়ারি তিন দিনব্যাপী এ অলিম্পিয়াড অনুষ্ঠিত হবে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে। বাংলাদেশে এ দ্বিতীয়  ব্লকচেইন অলিম্পিয়াড আসরে সারা দেশের ৭০টি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ২৫৬টি দল আবেদন করেছে। ব্লকচেইন প্রকল্পের গুণগত মান বিবেচনায় চূড়ান্ত পর্বে ৪০টি দলকে মনোনীত করা হয়েছে। এই প্রতিযোগীতা থেকে নির্বাচিত ১২টি শীর্ষ দল আগামী জুলাই মাসে ইন্টারন্যাশনাল ব্লকচেইন অলিম্পিয়াডে অংশগ্রহনের সুযোগ পাবে। এবারের ন্যাশনাল ব্লকচেইন অলিম্পিয়াডের তিন দিনে ব্লকচেইন বিষয়ক ৪টি গুরুত্বপূর্ন সেমিনার অনুষ্ঠিত হবে। যেখানে দেশি ও বিদেশি ব্লকচেইন বিশেষজ্ঞ, নীতিনির্ধারক, শিল্প নেত্রিবৃন্দ সহ অন্যান্যরা অংশ গ্রহণ করবেন।
 
বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের নির্বাহী পরিচালক পার্থপ্রতিম দেবের সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন ব্লকচেইন অলিম্পিয়াড বাংলাদেশ (বিসিওএলবিডি) এর আহ্বায়ক বুয়েটের সাবেক অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ কায়কোবাদ, বিসিওএলবিডি এর সমন্বয়ক হাবিবুল্লাহ এন করিম। পরে প্রতিমন্ত্রী সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নে জবাব দেন।

 

এবিএন/জসিম/তোহা

এই বিভাগের আরো সংবাদ