ফিফা আন্তর্জাতিক প্রীতি ফুটবল ম্যাচে ভুটানকে ৪-১ গোলে হারিয়েছে বাংলাদেশ জাতীয় দল

নিজের নামে সড়কের নামকরণে আবেগাপ্লুত টেনিস সেনসেশন

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:৪২

প্রথম কানাডিয়ান হিসেবে গ্র্যান্ডস্ল্যাম জিতে দেশে বিরাট সম্মান পাচ্ছেন বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কু। মাত্র ১৯ বছর বয়সে গ্র্যান্ড স্ল্যাম জিতে গোটা দেশজুড়ে হইচই ফেলে দিয়েছেন ইউএস ওপেন জেতা নতুন চ্যাম্পিয়ন। মিসিসাউগায় নিজের হোমটাউনে এবার সম্মানিত হলেন বিয়াঙ্কা।

প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোর উপস্থিতিতে বিয়াঙ্কার সমর্থনে বিরাট মিছিল বের হয় শহরের রাজপথে। হাজার-হাজার সমর্থকদের উপস্থিতিতে সেই মিছিলে বিয়াঙ্কাকে নিয়ে উচ্ছ্বাস যেন ছাপিয়ে গেল সবকিছু। একইসঙ্গে দেশের প্রথম গ্র্যান্ডস্ল্যাম বিজয়ীকে বিশেষ সম্মান জানিয়ে শহরের রাজপথ বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কুর নামে নামকরণ করলেন মিসিসাউগার মেয়র বনি ক্রম্বি। শহরের রাজপথের নতুন নাম রাখা হয় ‘আন্দ্রেস্কু ওয়ে’।

এবারে ইউএস ওপেনের ফাইনালে সেরেনা উইলিয়ামসকে হারিয়ে শিরোপা জেতেন বিয়াঙ্কা। ফাইনালে মার্কিন তারকাকে ৬-৩, ৭-৫ ব্যবধানে পরাস্ত করেন আন্দ্রেস্কু। শহরের রাজপথে কানাডার জাতীয় পতাকা হাতে সেলিব্রেশনে মেতে ওঠেন বিয়াঙ্কা নিজেও। গোটা ঘটনায় আপ্লুত কানাডার প্রথম গ্র্যান্ডস্ল্যাম বিজয়ী বলেন, ‘আমি অভিভূত। এই সাফল্যের পিছনে অনেক পরিশ্রম লুকিয়ে রয়েছে। রয়েছে অনেক ওঠা-পড়া।'

বিয়াঙ্কার প্রশংসায় কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো বলেন, ‘সকল কানাডাবাসীর কাছে বিয়াঙ্কা একজন অনুপ্রেরণা। তবে তরুণ প্রজন্মের কাছে সেই অনুপ্রেরণা অনেক বেশি। কারণ বিয়াঙ্কা দেখিয়ে দিয়েছে তরুণরা চাইলে সবকিছু করতে পারে’।

টরন্টো র‍্যাপটার্সের ‘উই দ্য নর্থ’ স্লোগানই বিয়াঙ্কার ক্ষেত্রে পরিবর্তিত হয়েছে ‘শি দ্য নর্থ’ স্লোগানে। টরন্টো মেয়র ১৬ সেপ্টেম্বর দিনটিকে ‘বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কু ডে’ নামে ঘোষণা করেছেন।

এবিএন/শংকর রায়/জসিম/পিংকি

এই বিভাগের আরো সংবাদ