আফগানিস্তানকে ইংল্যান্ডের রানচাপা

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৮ জুন ২০১৯, ১৯:৩৩

বিশ্বকাপে নিজেদের সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড গড়ল ইংল্যান্ড। ম্যানচেস্টারে আফগানিস্তানের বিপক্ষে আগে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৩৯৭ রান তুলেছে ইংলিশরা। এর আগে বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের সর্বোচ্চ রান ছিল ৩৮৬। চলতি বিশ্বকাপেই কার্ডিফে বাংলাদেশের বিপক্ষে এ রান করেছিল তারা।

আসরের ২৪তম ম্যাচে টস জিতে আগে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন ইংল্যান্ড অধিনায়ক ইয়ন মরগান। তারকা স্পিনার রশিদ খানকে এদিন পিটিয়ে ছাতু বানিয়েছে ইংল্যান্ড।

টস জিতে ব্যাট করতে নেমে দলীয় ৪৪ রানেই ওপেনার জেমস ভিন্সকে হারায় ইংল্যান্ড। ভালো করার ইঙ্গিত দিয়েও ব্যক্তিগত ২৬ রানের মাথায় তিনি ফেরেন সাজঘরে। এরপর প্রতিরোধ গড়ে তোলেন জনি বেয়ারস্টো ও জো রুট।

দ্বিতীয় উইকেটে এই জুটি থেকে আসে ১২০ রান। ৯৯ বলে ৯০ রান করে বেয়ারস্টো ফিরে গেলে এ জুটি ভাঙে।

এরপর মারকুটে ব্যাটিংয়ে রানের চাকা আরো সচল করেন অধিনায়ক ইয়ন মরগান। শতকের কাছ থেকে ফিরতে হয় রুটকেও। দলীয় ৩৫৩ রানে তৃতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে সাজঘরে ফেরার আগে করেন ৮২ বলে ৮৮ রান, যে ইনিংসে ছিল ৫টি চার ও ১টি ছক্কা।

তবে রশিদ-নবীদের ওপর তাণ্ডব চালান মরগান। শেষপর্যন্ত সাজঘরে ফেরেন মাত্র ৭১ বলে ১৪৮ রানের এক ইনিংস খেলে। এই ইনিংসে ছিল ৪টি চার ও ১৭টি ছক্কা; যা ভেঙেছে রোহিত শর্মা, এবি ডি ভিলিয়ার্স ও ক্রিস গেইলের এক ম্যাচে সবচেয়ে বেশি ছক্কার বিশ্বরেকর্ড।

শেষদিকে ইংল্যান্ডের মিডল ও লোয়ার অর্ডার দ্রুত কিছু উইকেট হারিয়ে ফেলে। নির্ধারিত ৫০ ওভার শেষে ৬ উইকেট হারিয়ে দলের সংগ্রহ দাঁড়ায় ৩৯৭ রান।

মরগানের বিধ্বংসী রূপের সামনে অসহায় ছিলেন আফগানিস্তানের তারকা স্পিনার রশিদ খান। ৯ ওভার বল করে এদিন তিনি বিলি করেন ১১০ রান, যা একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের দ্বিতীয় খরুচে বোলিংয়ের রেকর্ড এবং ৯ ওভার বল করে সবচেয়ে বাজে বোলিংয়ের রেকর্ড। দলের পক্ষে অধিনায়ক গুলবাদিন নাইব ও দৌলত জাদরান তিনটি করে উইকেট শিকার করেন।

এবিএন/মমিন/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ