এশিয়া কাপ কি খেলতে পারবেন সাকিব?

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ০৯ আগস্ট ২০১৮, ১৮:২২

ঢাকা, ০৯ আগস্ট, এবিনিউজ : সেপ্টেম্বরের এশিয়া কাপের আগেই ইনজুরি আক্রান্ত আঙুলে অস্ত্রোপচার করাতে চান সাকিব আল হাসান। সেক্ষেত্রে এশিয়া কাপে খেলার সুযোগ অনেকটাই ক্ষীণ বিশ্বসেরা এ অলরাউন্ডারের।

 ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর শেষে দেশে ফিরে নিজেই সংবাদমাধ্যমকে এ কথা জানিয়েছেন টাইগারদের টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। এছাড়া পুরোপুরি ফিট না হয়ে খেলতে চান না বলেও জানিয়েছেন তিনি।

সাকিব বাংলাদেশের টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি দলের অধিনায়ক। তবে কেবল এই একটা পরিচয়ে তাকে বাঁধা সম্ভব নয়। তিনি বাংলাদেশের সবচেয়ে ধারাবাহিক ব্যাটসম্যানদের একজন। আর বোলিংয়ে তো গত এক দশক ধরেই দলের আস্থার প্রতীক তিনি।

অনেক প্রাপ্তির ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর শেষে দেশে ফেরার পর এবার তিনিই শোনালেন মন খারাপ করা তথ্য। তবে তথ্যটা একেবারে নতুন নয়। আঙুলের ইনজুরিতে ভুগছেন সাকিব আল হাসান। জানুয়ারিতে দেশের মাটিতে ত্রিদেশীয় সিরিজে হাতের আঙ্গুলে আঘাত পান বিশ্বসেরা এ অলরাউন্ডার। প্রাথমিক চিকিৎসা হলেও, ইনজুরি নিয়েই দীর্ঘদিন ধরে খেলে যাচ্ছেন তিনি। তবে এবার আর নয়।

সাকিব বলেন, 'ব্যাপারটা ফিজিও ভালো বলতে পারবেন। তবে এটা আমরা সবাই জানি যে, সার্জারি করতে হবে। ওইটা নিয়েই ডিসকাশন চলছে যে, কোথায় করলে ভালো হয়, কবে করলে ভালো হয়। তবে আমি মনে করি, যত তাড়াতাড়ি সম্ভব করে ফেলা ভালো।'

অস্ত্রোপচারের টেবিলে গেলে কমপক্ষে দুই মাস মাঠের বাইরে থাকতে হবে বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারকে। দেশের ক্রিকেটের ব্যস্ত সূচি থাকায় বিষয়টি নিয়ে কয়েকদিন আগেই শঙ্কার কথা জানিয়েছিলেন বিসিবির চিকিৎসক দেবাশিষ চৌধুরী।
 

তবে পরিপূর্ণ সুস্থ না হয়ে খেলতে চান না সাকিব আল হাসান। দলের স্বার্থেই পুরো ফিট অবস্থায় মাঠে থাকতে চান অধিনায়ক। তাই এশিয়া কাপের আগেই যেতে চান চিকিৎসকের ছুরির নিচে।

'আমি চাই না পুরোপুরি ফিন না থেকে খেলতে। সেভাবে যদি চিন্তা করি তবে এশিয়া কাপের আগে হবে সেটাই স্বাভাবিক।'

আসছে সেপ্টেম্বরে ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা, আফগানিস্তান এবং একটি সহযোগী দেশের বিপক্ষে দুবাইয়ে এশিয়া কাপে লড়বে বাংলাদেশ।

এবিএন/মমিন/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ