নানা আয়োেজনে মুম্বাইয়ে মহান বিজয় দিবস উদযাপন

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৮ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৮:৩৫

আজ মুম্বাইয়ে বাংলাদেশের মহান বিজয় দিবসের ৪৭তম বার্ষিকী উদযাপিত হয়। এ উপলক্ষ্যে মুম্বাইয়ে অবস্থিত বাংলাদেশ উপ-হাইকমিশনের উদ্যোগে দিনব্যাপী অনুষ্ঠানমালার আয়োজন করা হয়। দিবসের প্রথম ভাগে জাতীয় পতাকা উত্তোলন, মহামান্য রাষ্ট্রপতি, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, মাননীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রী ও মাননীয় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর বাণী পাঠ, বিশেষ মোনাজাত, দিবসের তাৎপর্য তুলে ধরে প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শন ও আলোচনাসভার আয়োজন করা হয়।

জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মাধ্যমে মুম্বাই-এ বাংলাদেশের উপ-হাইকমিশনারজনাব মোঃ লুৎফর রহমান দিবসের সূচনা করেন।বিশেষ মোনাজাতে জাতির পিতার মহান আত্মার এবং তাঁর পরিবারের শহীদ সদস্যদের মাগফেরাত কামনা করা হয়। এ সময় দেশ ও জাতির শান্তি ও উন্নতি কামনা করে দোয়া করা হয়।

আলোচনাসভায় মুম্বাই-এ নিযুক্ত বাংলাদেশের উপ-হাইকমিশনার তাঁর বক্তব্যে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের এবং স্বাধীনতাযুদ্ধে আত্মদানকারী শহীদদের স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

তিনি বাংলাদেশের সকল নাগরিককে জাতির অগ্রগতি ও সমৃদ্ধির জন্য সচেতনভাবে কাজ করার এবং বিদেশে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করার আহ্বান জানান।

বিজয় দিবস উদযাপনের অংশ হিসেবেসন্ধ্যায় স্থানীয়”মুম্বাইজিমখানা” প্রাঙ্গনে ’বাংলাদেশ উৎসব’ আয়োজন করা হয়।এ আয়োজনে ‘সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা’ ও ‘ফুডফেস্টিভল’অন্তর্ভূক্ত ছিলো।

উৎসবে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিতছিলেন- মহারাষ্ট্র সরকারেরপ্রধান তথ্য কর্মকর্তা জনাব সুমিত মল্লিক।অনুষ্ঠানে বাংলাদেশে থেকে আগত সাংস্কৃতিক দল সংগীত ও নৃত্য পরিবেশন করেন।

এ ছাড়া বাংলাদেশ থেকে আগত জনৈক বিশিষ্ট রন্ধন শিল্পী মিজ নয়না আফরোজ-এর তত্ত্বাবধানে ফুড ফেস্টিভল আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে মহারাষ্ট্র সরকারের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা, মুম্বাই-এ বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশী, মুম্বাই-এর ডিপ্লোমেটিক কোরের প্রতিনিধি এবংবিশিষ্ট আমন্ত্রিত অতিথি, বাংলাদেশের স্বাধীনতাযুদ্ধে অংশগ্রহনকারী ভারতীয় সশস্ত্র বাহিনীর (অবসরপ্রাপ্ত) বেশ কয়েকজন সদস্য, উপ হাই কমিশনের সকল কর্মকর্তা/কর্মচারী ও তাঁদের পরিবারবর্গ উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠান শেষে আগত অতিথিদের বাঙ্গালী খাবারে আপ্যায়িত করা হয়।

এবিএন/রাজ্জাক/জসিম/এআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ