উজবেকিস্তানের বাংলাদেশ দূতাবাসে নতুন শহিদ মিনার স্থাপন

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৯:৩৪ | আপডেট : ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৯:৪৮

বাংলাদেশ দূতাবাস, তাসখন্দে যথাযথ মর্যাদা ও ভাবগাম্ভীর্যে অমর একুশে ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন করা হয়। উজবেকিস্তানে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মোঃ জাহাঙ্গীর আলম জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত করেন এবং নতুন স্থাপিত শহিদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণের মাধ্যমে দিবসের কর্মসূচি শুরু করেন। এ সময় জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশন করা হয়।

এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানের শুরুতে এক মিনিট নীরবতা পালনের মাধ্যমে শহিদদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানানো হয়। অতঃপর রাষ্ট্রদূত শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর বাণী পাঠ এবং পরে বক্তব্য প্রদান করেন। দূতাবাসের মিনিস্টার ও উপমিশন প্রধান নৃপেন্দ্র চন্দ্র দেবনাথ পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীর বাণী পাঠ করেন।

এ সময়ে অন্যান্যের মধ্যে উজবেকিস্তানে নিযুক্ত ভারতের রাষ্ট্রদূত মনীষ প্রভাত, ইউএনওডিসি-এর সমন্বয়কারী মিজ আশিতা মিত্তাল, উজবেক পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, বিভিন্ন মন্ত্রণালয় ও দূতাবাসের প্রতিনিধিবৃন্দ, প্রবাসী বাংলাদেশি, ওয়ার্ল্ড ইকোনমি এন্ড ডিপ্লোমেসি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস রেক্টরসহ ছাত্র-ছাত্রীবৃন্দ, বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় ও ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের শিক্ষক ও ছাত্র-ছাত্রীবৃন্দ, প্রাক্তন রাষ্ট্রদূতবৃন্দ, ভাষাবিদসহ বিভিন্ন ইলেকট্রনিক ও প্রিন্ট মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা পুরস্কারপ্রাপ্ত বিশিষ্ট উজবেক ভাষা গবেষক ড. গুলাম ইসমাইলভ মিরজয়ভিচ তাঁর মা, স্ত্রী ও পরিবারের অন্যান্য সদস্যসহ দূতাবাসের সকলে অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করেন। অনুষ্ঠানে বিভিন্ন দেশের অংশগ্রহণকারীগণ বিভিন্ন ভাষায় ১২ টি কবিতা আবৃত্তি করেন।


এবিএন/জসিম/তোহা

এই বিভাগের আরো সংবাদ