গ্রিসে পালিত হলো অমর একুশে ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৮:২৭

বিনম্র শ্রদ্ধা এবং উৎসাহ ও উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে গ্রিসে পালিত হলো মহান শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস।  মহান ভাষা শহিদদের স্মৃতির উদ্দেশ্যে গ্রিসে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত জনাব আসুদ আহ্মদ কর্তৃক পুষ্পস্তবক অর্পণের মাধ্যমে দিবসটি উদযাপনের সূচনা হয় ।  দিবসটি পালনের জন্য দূতাবাস বিস্তারিত কর্মসূচি গ্রহণ করেছে যার মধ্যে ছিলো ২১শে ফেব্রুয়ারি সকালে আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিতকরণ ও ভাষা আন্দোলনের শহিদদের আত্মার মাগফিরাত কামনা এবং বাংলাদেশের শান্তি ও উত্তরোত্তর সমৃদ্ধি কামনা করে বিশেষ দোয়া ও মোনাজাত, বাণী পাঠ, প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শন এবং দূতাবাসে ২১শে ফেব্রুয়ারির মূল প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে বিশেষ অনলাইন আলোচনা অনুষ্ঠান।

গ্রীসসহ সারা বিশ্বে চলমান করোনা মহামারী পরিস্থিতি এবং গ্রীসের লকডাউন পরিস্থিতির প্রেক্ষিতে প্রবাসী ভাই-বোনদের অংশগ্রহণ নিশ্চিত করতে এ বছর মহান শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের অনুষ্ঠান অনলাইনে জুম প্লাটফর্ম ব্যবহার করে আয়োজন করা হয় ।  অনুষ্ঠানে মহান একুশের ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়। দিবসটি উপলক্ষ্যে মহামান্য রাষ্ট্রপতি, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, মাননীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রী এবং মাননীয় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর বাণী পাঠ করা হয়। মহান শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষ্যে নির্মিত বিশেষ প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শন করা হয়।  

দূতাবাসের কাউন্সেলর জনাব সুজন দেবনাথের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত অনলাইন আলোচনা পর্বে বক্তারা মহান একুশের শহিদদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করে একুশের চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে একযোগে দেশ গড়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন ।  তারা আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের মূল চেতনা সারা বিশ্বে ছড়িয়ে দেয়ার কথা বলেন ।  

রাষ্ট্রদূত আসুদ আহ্মদ তাঁর বক্তব্যে গভীর শ্রদ্ধার সাথে ভাষা আন্দোলনের শহীদদের অমূল্য ভূমিকা এবং জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বের কথা কৃতজ্ঞচিত্তে স্মরণ করেন। তিনি বলেন, কয়েকজন প্রবাসী বাংলাদেশির প্রাথমিক উদ্যোগ এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বতঃস্ফূর্ত আগ্রহ ও ঐকান্তিক চেষ্টার ফসল “আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস” আজ বিশ্বব্যাপী পালিত হচ্ছে।  এ বছর দিবসটির প্রতিপাদ্য- ‘শিক্ষায় এবং সমাজে বহুভাষার অন্তর্ভুক্তি সযতেœ লালন করি’ -এর উপর বক্তারা আলোচনা করেন।  আলোচনা পর্বে অংশ নেন প্রবাসী বাংলাদেশিদের বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক, আঞ্চলিক ও ব্যবসায়ী সংগঠনের প্রতিনিধি, নারী নেতৃবৃন্দ এবং বাংলাদেশ কমিউনিটি ইন গ্রীসের নেতৃবৃন্দ।

এ বছর বাংলাদেশ দূতাবাস, এথেন্স প্রবাসী বাংলাদেশি শিশু-কিশোর ও প্রাপ্ত বয়স্কদের জন্য মুজিব বর্ষে মহান শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস-২০২১ উপলক্ষ্যে রচনা ও চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতার আয়োজন করে।  গ্রিসে চলমান লকডাউন ও করোনা পরিস্থিতির কারণে এই প্রতিযোগিতা অনলাইনে অনুষ্ঠিত হয়।  রাষ্ট্রদূত মহান শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষ্যে দূতাবাসের আয়োজিত অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে  রচনা ও চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করেন।  মহান শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের আয়োজনে অংশগ্রহণকারী প্রবাসী বাংলাদেশি নাগরিকগণের মধ্যে ব্যাপক উৎসাহ ও উদ্দীপনা লক্ষ্য করা গেছে।
 

 এবিএন/জসিম/তোহা

এই বিভাগের আরো সংবাদ