রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে মিয়ানমারের প্রতিশ্রুতি আদায় করেছি: প্রধানমন্ত্রী

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ০২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৭:১৭ | আপডেট : ০২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৯:১২

বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নেয়ার প্রক্রিয়ায় মিয়ানমার সাড়া দিতে শুরু করেছে বলে জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, প্রত্যাবাসন প্রত্যাশি রোহিঙ্গাদের তালিকা মিয়ানমার পেয়েছে বলে স্বীকার করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট প্রেসিডেন্ট উইন মিন্ট।

বাংলাদেশের সাথে সমঝোতা অনুযায়ী প্রথম দফায় ৩ হাজারের মত রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমার প্রস্তুত বলেও প্রধানমন্ত্রীকে জানিয়েছেন তিনি।

রোহিঙ্গাদের নিয়ে ভুয়া ছবি দিয়ে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর বই প্রকাশ প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন,তারা এভাবে ভুয়া ছবি দিয়ে অপপ্রচার চালিয়ে জঘন্য কাজ করেছে। কিন্তু এটা তারা কার কাছ থেকে শিখলো? আমাদের দেশেও তো হয়েছে। আমাদের বিএনপি-জামায়াতের কাছ থেকে এগুলো শিখলো কি না তারা?

আজ রবিবার (২ সেপ্টেম্বর) গণভবনে বিমসটেক সম্মেলন প্রসঙ্গে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে একথা বলেন তিনি। বিকেল ৪টায় এ সংবাদ সম্মেলন শুরু হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমাদের দেশেও এই ধরনের ছবি নিয়ে অনেক কিছু হয়েছে। বিভিন্নভাবে জামায়াত-বিএনপিও কিন্তু এ ধরনের প্রচার চালিয়েছিল। একেবারে কাবা ঘরের সামনে ব্যানার ধরার ছবির মিথ্যাচারও আমরা দেখেছি। সুতরাং এসব মানুষের কাছে ধরা পড়ে যায়। মিয়ানমার সরকারও ধরা পড়ে গেছে।

তিনি বলেন, বিমসটেকে অনানুষ্ঠানিকভাবে আলোচনায় উঠেছে রোহিঙ্গা ইস্যুটি। এছাড়া সম্মেলনের ফাঁকে আঞ্চলিক নেতাদের সঙ্গে বৈঠকেও এ নিয়ে কথা হয়েছে।

শেখ হাসিনা বলেন, আমরা মিয়ানমারের সঙ্গেও আলোচনা অব্যাহত রেখেছি। তারা বলে, কিন্তু করতে পারে না। কারণ, করতে গেলে অনেক বাধা আসে।

তিনি বলেন, বিমসটেকের মাধ্যমে আঞ্চলিক সংযোগ বৃদ্ধির জন্য আমরা একমত হয়েছি। সন্ত্রাস, চরমপন্থা দমন, সবার জন্য আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা, দারিদ্র্য দূরীকরণ এজেন্ডা ২০৩০ বাস্তবায়নে জোরারোপ করেছি।’

বঙ্গোপসাগরের উপকূলবর্তী সাত দেশের জোট বিমসটেকের চতুর্থ শীর্ষ সম্মেলন শেষে ঢাকায় ফিরে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনের প্রশ্নোত্তর পর্বে এসব কথা জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। গত শুক্রবার বিমসটেক সম্মেলনে যোগ দিতে নেপালের কাঠমান্ডু যান শেখ হাসিনা।

এবিএন/মমিন/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ