আওয়ামী লীগ হত্যার নয়, মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠার রাজনীতি করে : আইনমন্ত্রী

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৯:১৯

আজ মঙ্গলবার (১০ সেপ্টেম্বর) কসবা উপজেলার বায়েক ইউনিয়নের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক এমপি বলেন, বেগম খালেদা জিয়ার লোকজন সংবাদ সম্মেলনে বলেন আমরা নাকি জেলখানায় খালেদা জিয়াকে মেরে ফেলার চেষ্টা করছি।

মির্জা ফখরুল ও রেজভী সাহেবের ভাবা উচিত ২০০৪ সালে ২১ আগস্ট জননেত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার জন্য বেগম খালেদার পুত্র তারেক কী করেছিলেন। দলীয় নেতা কর্মীরা মানব ঢাল করে শেখ হাসিনাকে বাঁচিয়েছে। বহু নেতা-কর্মী হতাহত হয়েছে। কুলাঙ্গার তারেক চিরতরে আওয়ামী লীগ নেতৃত্বকে নিশ্চিহ্ন করতে চেয়েছিলো। সেনা সরকারের কাছে মুচলেকা দিয়ে তারেক লন্ডনে চলে যায়। সে একাধিক মামলায় সাজাপ্রাপ্ত আসামী। তার মা খালেদা জিয়া এতিমের টাকা চুরি করার বিচারে তার জেল হয়েছে।

কারাবাসে থাকার জন্য সে তার গৃহপরিচারিকাকে জেলে নিতে চায়। সরকার তার গৃহপরিচারিকার সম্মতি নিয়ে তার আবেদেনে সম্মতি দিয়েছে। জেলখানায় গৃহপরিচারিকা নিয়ে খালেদা জিয়া ভালভাবেই জীবন যাপন করছেন। তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ হত্যার রাজনীতি করে না। আওয়ামী লীগ মানুষের মানবাধিকার প্রতিষ্ঠার রাজনীতি করে।

তিনি আরো বলেন, আগস্ট মাসে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা হয়েছে। এই মাসে পাকিস্তানের স্বাধীনতা দিবস। এই মাস এলেই পাকিস্তানের দোষররা বাংলাদেশকে হত্যা করতে চায়। এরা বাংলাদেশকে একটি অকার্যকর রাষ্ট্র করতে চায়। কিন্তু বঙ্গবন্ধু কন্যা এই দেশকে এমন পর্যায়ে নিয়েছেন এ দেশ এখন সারা বিশ্বে উন্নয়নের রোল মডেল।

বায়েক ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সভাপতি মনিরুল হকের সভাপতিত্বে সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা চেয়ারম্যান এডভোকেট রাশেদুল কাওসার ভুইয়া জীবন, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান এডভোকেট আনিসুল হক ভুইয়া, উপজেলা আওয়ামী লীগ যুগ্ম আহ্বায়ক এম.জি হাক্কানী, আলহাজ রুহুল আমিন ভুইয়া বকুল, কসবা পৌর মেয়র মো. এমরান উদ্দিন জুয়েল, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মো. মনির হোসেন, বায়েক ইউপির চেয়ারম্যান আল মামুন ভুইয়া, সাবেক বায়েক ইউপি চেয়ারম্যান বিল্লাল হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক ছাদেক সরকার, উপজেলা কৃষকলীগ যুগ্ম আহ্বায়ক আবদুল কুদ্দছ রানা, আওয়ামী লীগ নেতা নুরন্নবী আজমল প্রমুখ।

পরে মন্ত্রী বায়েক ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নতুন কমিটির সভাপতি মো. শাহরিয়ার ভুইয়া ও সাধারণ সম্পাদক মো. নজরুল ইসলামের নাম ঘোষনা করলে সম্মেলনে উপস্থিত কাউন্সিল ও জনগণ মূই মূই করতালীর মাধ্যমে সমর্থন দেন। সম্মেলনে পুরো ইুনিয়নের বিভিন্ন গ্রাম থেকে খন্ড খন্ড মিছিল এসে বায়েক ইউনিয়ন পরিষদ চত্ত্বর ভরে কুল্লাপাথর-কসবা সড়কে হাজার হাজার জনতা অবস্থান নেয়। রোদ-বৃষ্টি উপেক্ষা করে হাজার হাজার নারী পুরুষ সম্মেলনে উপস্থিত হন।

পরে মন্ত্রী গরীব ও অসহায় মানুষের মাঝে ঢেউটিন ও নগদ অর্থ বিতরণ করেন। তাছাড়া উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর আয়োজিত ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে রাসায়নিক সার ও বীজ বিতরণ শেষে উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত কসবা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু জাতীয় ফুটবল টুর্ণামেন্টের উদ্বোধন করেন।


এবিএন/অলিউল্লাহ সরকার/জসিম/তোহা

এই বিভাগের আরো সংবাদ