উপজেলা নির্বাচন: তৃতীয় ধাপে ভোট শেষ চলছে গণনা

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২৪ মার্চ ২০১৯, ১৭:৫৩

পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের তৃতীয় ধাপের ভোটগ্রহণ শেষ হয়েছে। আজ রবিবার সকাল ৮টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয়ে চলে টানা বিকেল ৪টা পর্যন্ত। রবিবার সাত বিভাগের ২৫ জেলায় ১১৬টি উপজেলায় সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ভোটগ্রহণ শেষে এখন চলছে গণনা।

এদিকে ব্যালটে জাল ভোটের অভিযোগ আসায় কিশোরগঞ্জের কটিয়াদী উপজেলার সবগুলো কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ সকাল থেকে স্থগিত রাখা হয়। এছাড়া কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলার মগনামা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও চট্টগ্রামের চন্দনাইশের একটি কেন্দ্রে গোলাগুলি ও হাঙ্গামার ঘটনা ঘটে। তবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ওই দুই কেন্দ্রের পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনে ভোটগ্রহণ নির্বিঘ্ন রাখে। নির্বাচনে আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় পুলিশ র‌্যাব, আনসার, এপিবিএন পাশাপাশি বিডিআর ও সেনাবাহিনীও মোতায়েন করা হয়।

তৃতীয় ধাপে ১২৭ উপজেলায় তফসিল ঘোষণা করা হলেও সাত বিভাগের ২৫ জেলার ১১৭টি উপজেলায় ১ হাজার ৩৭৬ জন প্রার্থী নির্বাচনে অংশ নেন। এর মধ্যে চেয়ারম্যান পদে ৩৫৮ জন, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৬০৪ জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪১৪ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। এসব উপজেলায় মোট ভোটার ২ কোটি ৪৭ লাখ ৫৩ হাজার ১৪৮ জন। কেন্দ্র সংখ্যা ১০ হাজার ১৮টি।

অন্যদিকে বরিশালের গৌরনদী ও আগৈলঝাড়া, মাদারীপুর জেলার শিবচর, শরীয়তপুর জেলার ভেদরগঞ্জ, নরসিংদী জেলার পলাশ এবং চট্টগ্রামের আনোয়ারা উপজেলায় চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান ও নারী ভাইস চেয়ারম্যান -এই তিন পদেই একক প্রার্থী রয়েছেন। ফলে এই ছয় উপজেলায় কোনো ভোটগ্রহণ হয়নি।

যে ১১৭ উপজেলায় ভোট হয়েছে সেগুলো হলো-
রাজশাহী বিভাগের চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার ভোলাহাট, গোমস্তাপুর, নাচোল ও শিবগঞ্জ উপজেলা এবং রংপুর বিভাগের রংপুর জেলার সদর ও মিঠাপুকুর উপজেলা। খুলনা বিভাগের চুয়াডাঙ্গা জেলার সদর, আলমডাঙ্গা, দামুড়হুদা ও জীবননগর উপজেলা; মাগুরা জেলার সদর, শ্রীপুর, শালিখা ও মোহম্মদপুর উপজেলা; নড়াইল জেলার সদর, কালিয়া ও লোহাগড়া উপজেলা; সাতক্ষীরা জেলার সদর, আশাশুনি, শ্যামনগর, কালীগঞ্জ, কলারোয়া, তালা ও দেবহাটা উপজেলা; কুষ্টিয়া জেলার সদর, ভেড়ামারা, কুমারখালী, মিরপুর, খোকসা ও দৌলতপুর উপজেলা; মেহেরপুর জেলার সদর, মুজিবনগর ও গাংনী উপজেলা এবং ঝিনাইদহ জেলার সদর, শৈলকুপা, হরিণাকুণ্ডু ও কালীগঞ্জ উপজেলা।

বরিশাল বিভাগের বরিশাল জেলা সদর, বাকেরগঞ্জ, বাবুগঞ্জ, বানারীপাড়া, উজিরপুর, মুলাদী ও হিজলা উপজেলা; ঝালকাঠি জেলা সদর, নলছিটি, রাজাপুর ও কাঁঠালিয়া উপজেলা এবং ভোলা জেলার বোরহানউদ্দিন উপজেলা। ময়মনসিংহ বিভাগের শেরপুর জেলার নালিতাবাড়ী, শ্রীবরদী ও ঝিনাইগাতী উপজেলা।

ঢাকা বিভাগের মাদারীপুর জেলার কালকিনি ও রাজৈর উপজেলা; শরীয়তপুর জেলার সদর, জাজিরা, নাড়িয়া, ডামুড্যা ও গোসাইরহাট উপজেলা; গোপালগঞ্জের সদর, টুঙ্গীপাড়া, কোটালীপাড়া, কাশিয়ানী ও মুকসুদপুর উপজেলা; রাজবাড়ী জেলার সদর, গোয়ালন্দ, পাংশা ও বালিয়াকান্দি উপজেলা; মানিকগঞ্জ জেলার সদর, দৌলতপুর, ঘিওর, শিবালয়, সিঙ্গাইর, হরিরামপুর ও সাটুরিয়া; গাজীপুর জেলার কাপাসিয়া, কারিয়াকৈর, শ্রীপুর ও কালীগঞ্জ উপজেলা; নরসিংদী জেলার শিবপুর, মনোহরদী, বেলাব ও রায়পুর উপজেলা এবং কিশোরগঞ্জ জেলার সদর, হোসেনপুর, কটিয়াদী, পাকুন্দিয়া, তাড়াইল, করিমগঞ্জ, ইটনা, মিঠামইন, অষ্টগ্রাম, নিকলী, বাজিতপুর, কুলিয়ারচর ও ভৈরব উপজেলা।

চট্টগ্রাম বিভাগের চাঁদপুর জেলার সদর, কঁচুয়া, মতলব উত্তর, মতলব দক্ষিণ, ফরিদগঞ্জ, হাজীগঞ্জ ও শাহরাস্তি উপজেলা; লক্ষ্মীপুর জেলার সদর, রামগঞ্জ, রায়পুর, কমলনগর ও রামগতি উপজেলা; চট্টগ্রাম জেলার বোয়ালখালী, পটিয়া, চন্দনাইশ, লোহাগাড়া ও বাঁশখালী উপজেলা এবং কক্সবাজার জেলার পেকুয়া, মহেশখালী, রামু, উখিয়া ও টেকনাফ উপজেলা।

এই বিভাগের আরো সংবাদ