শহীদ মিনারে গোলাম সারওয়ারকে সর্বস্তরের মানুষের শেষ শ্রদ্ধা

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৬ আগস্ট ২০১৮, ১৩:০৮

ঢাকা, ১৬ আগস্ট, এবিনিউজ : দেশবরেণ্য সাংবাদিক, সমকাল সম্পাদক গোলাম সারওয়ারের মরদেহ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে নেওয়া হয়েছে। 

আজ বৃহস্পতিবার (১৬ আগস্ট) সকাল পৌনে ১১টার দিকে লাশবাহী অ্যাম্বুলেন্সে করে তার মরদেহ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে নেওয়া হয়। সেখানে সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের ব্যবস্থাপনায় সর্বস্তরের মানুষ শেষ শ্রদ্ধা জানাচ্ছেন বর্ষীয়ান এই সাংবাদিককে।

কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে নেয়ার পর শুরুতেই গোলাম সারওয়ারের মরদেহে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী, আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম, তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু, সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর, আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক প্রমুখ।

পরে তাকে শেষ বিদায় দিতে সাধারণ মানুষের ঢল নামে। শেষবারের মতো বিদায় দিতে এসে তাদের চোখে দেখা গেছে অশ্রুর ধারা। চারপাশে জমায়েত হওয়া শত শত মানুষের ভেতর চাপা কান্না ভালোবাসার এই মানুষটির জন্য।

এর আগে সকাল ৯টা ২০ মিনিটে তেজগাঁওয়ে সমকাল কার্যালয়ের পাশে অবস্থিত বাংলাদেশ টেক্সটাইল বিশ্ববিদ্যালয় মাঠে জানাজা শেষে গোলাম সরওয়ারের মরদেহ নিয়ে আসা হয় শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে।

এর পর দুপুর ১টায় তার মরদেহ নেয়া হবে জাতীয় প্রেসক্লাবে। সেখানে তার সাংবাদিক সহকর্মীরা গোলাম সারওয়ারকে শেষ বিদায় জানাবেন। রণাঙ্গনের মুক্তিযোদ্ধা গোলাম সারওয়ারকে তার প্রিয়স্থান প্রেসক্লাব চত্বরেই তাকে রাষ্ট্রীয় সম্মাননা জানানো হবে। দীর্ঘ কর্মময় জীবনের অনেকটা সময় তিনি কাটিয়েছেন তার এই প্রিয় প্রতিষ্ঠানে। সংবাদকর্মীরা সেখানে গোলাম সারওয়ারের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করবেন। বাদ জোহর তার জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। এরপর বাদ আসর মিরপুর শহীদ বুদ্ধিজীবী কবরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত হবেন তিনি।

সোমবার (১৩ আগস্ট) রাত ৯টা ২৫ মিনিটে সিঙ্গাপুর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গোলাম সারওয়ারের মৃত্যু হয়।

এর আগে গত ৩০ জুলাই থেকে ফুসফুসের ইনফেকশন ও হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে ল্যাব এইড হাসপাতালে ভর্তি হন গোলাম সারওয়ার। উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ৩ আগস্ট শুক্রবার রাতে এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে সিঙ্গাপুর নেওয়া হয়। তিনি সিঙ্গাপুরের জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। তার বয়স হয়েছিল ৭৫ বছর।

এবিএন/সাদিক/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ