রান্নাঘরের ময়লায় দুর্গন্ধ ছড়ানো বন্ধ করার ৫ কৌশল

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২২ জুন ২০১৮, ১৮:৪৩ | আপডেট : ২২ জুন ২০১৮, ১৯:১০

ঢাকা, ২২ জুন, এবিনিউজ : ঈদের পর পর গৃহকর্মী ও পরিচ্ছন্নতা কর্মীরা প্রায় সকলেই ছুটিতে থাকে । এসময় ময়লা সংগ্রহ করবার গাড়ি রোজ এলেও গরমের দিনে মাত্র ২/৩ ঘণ্টা ময়লা জমে গেলেই রান্নাঘরে প্রচণ্ড বাজে গন্ধ তৈরি হয়।  অন্যদিকে ময়লা ফেলার ঝুড়ি পরিষ্কার করতে গেলেও ভোগান্তি হয় খুব।  এদিকে টানা ৪/৫ দিন হয়তো ময়লা নেবার লোকও আসছে না। কী করবেন এমন অবস্থায়? থাকছে এমন ৫টি টিপস, যার ফলে না।

শাক-সবজির খোসার ভিন্ন ব্যবস্থা
শাক-সবজির খোসা পচে গেলে বিচ্ছিরি গন্ধ হওয়াটা খুবই স্বাভাবিক। সেক্ষেত্রে শাক-সবজির খোসা ময়লার ঝুড়িতে না ফেলে করা যায় ভিন্ন ব্যবস্থা। যাদের বাড়িতে গাছপালা আছে, তাঁদের জন্য এগুলো হতে পারে খুব ভালো সার। সবুজ শাক-সবজির খোসাগুলো গাছের টবে দিয়ে রাখুন, বাড়তি সারের কাজ করবে। আলু, পেঁয়াজ ইত্যাদির খোসা আবার দিতে যাবেন না, হিতে বিপরীত হবে।

ফলের খোসা ও এঁটো-কাঁটা
ফল ও শাক-সবজির খোসাগুলো প্লাস্টিকের ছোট ব্যাগে ভরে ভালো করে মুখ আটকে দিন। এমনভাবে গিঁট দেবেন যেন বাতাস চলাচল করতে না পারে। এরপর ময়লার ঝুড়িতে রাখুন, গন্ধ হবে না। এঁটো-কাটার ক্ষেত্রেও একই পদ্ধতি অনুসরণ করুন।

মাছ-মাংস কাটলে যা করবেন
রাত-বিরেতে মাছ কিংবা মাংস কুটেছেন, কয়েক ঘণ্টা না যেতেই ঘরে হয় প্রচণ্ড দুর্গন্ধ। বিশেষ করে চিংড়ি মাছের খোসা থেকে যে প্রচণ্ড দুর্গন্ধ হয়, সেটা বোধহয় সকল গৃহিণীর অভিজ্ঞতাই আছে। কী করবেন? মাছ-মাংস কোটার পর অবশিষ্ট অংশ ময়লার ঝুড়িতে ফেলবেন না। বরং খবরের কাগজ দিয়ে সেগুলো মুড়ে নিন। তারপর প্লাস্টিক বা পলিথিনের ব্যাগে ভরে ভালো করে মুখ আটকে দিন। এরপর এই ব্যাগটি ডিপ ফ্রিজের এক কোণায় রেখে দিন। পরের দিন ময়লা নেবার লোক এলে ফ্রিজ থেকে বের করে দিয়ে দেবেন। এতে এসব জিনিস পচার সুযোগ পাবে না, দুর্গন্ধও হবে না।

খবরের কাগজ
ময়লার ঝুড়িতে পুরাতন খবরের কাগজ ব্যবহার করুন মোটা লেয়ার করে। এতে দুর্গন্ধ হবে অনেক কম, অন্যদিকে খবরের কাগজ ময়লা পানি শুষে রাখবে বিধায় পরিষ্কার করতেও অনেক কম ভোগান্তি হবে আপনার।

কিছু সহজ উপাদান
এছাড়াও কিছু আধুনিক ও সহজ পণ্য কমিয়ে দেবে আপনার ভোগান্তি। যেমন, ময়লার ফেলার জন্য একটু দাম দিয়ে ভালো এয়ার টাইট ঝুড়ি ক্রয় করুন। ময়লা ফেলার জন্য আলাদা প্লাস্টিকের ব্যাগ কিনতে পাওয়া যায়, সেগুলো ব্যবহার করুন। রান্নাঘরে এয়ার ফ্রেশনার 'বার' ব্যবহারের অভ্যাস গড়ে তুলুন।

কয়েক মিনিট বাড়তি সময় ও একটু বুদ্ধি খরচ করলেই আপনার ঘরদোর থাকবে সর্বদা দুর্গন্ধ মুক্ত।

এবিএন/রাজ্জাক/জসিম/এআর

এই বিভাগের আরো সংবাদ