যে ৭ কাজ অফিসে করতে মানা

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২০ এপ্রিল ২০১৯, ১০:১৩

ক্যারিয়ারে সাফল্য সবাই চায়। আর এ জন্য পাড়ি দেয় কঠিন পথ। সাধারণত কাজে নিষ্ঠাবান থাকা, পরিশ্রমী হওয়া, সময়ানুবর্তিতা, যোগাযোগের দক্ষতা ইত্যাদি ক্যারিয়ারে সাফল্য এনে দেয়। তবে কিছু বিষয় রয়েছে, যেগুলো অফিসে করলে ব্যক্তিত্বের ওপর বাজে প্রভাব পড়ে; ক্যারিয়ার ক্ষতিগ্রস্ত হয়। জেনে নিন অফিসে করা ঠিক নয় এমন কিছু বিষয়-

না শুনে কথা বলা
যোগাযোগের একটি বড় সমস্যা হলো না শুনে কথা বলা। অনেকেই শোনে কম, বলতে চায় বেশি। আপনার মধ্যে এই অভ্যাসটি থাকলে এটি ত্যাগ করুন। কেননা, যখন কথা বলবেন এক জিনিসই বারবার বলবেন। আর যখন শুনবেন, তখন নতুন কিছু জানতে পারবেন।

নির্দিষ্ট সময় কাজ শেষ না করা
অনেকেই নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে কাজ শেষ করাকে হাস্যকর বলে মনে করে। তবে এটি অভ্যাসে পরিণত হয়ে গেলে কিন্তু খারাপ। কাজ নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যেই শেষ করুন। প্রয়োজনে নিজের ওপর চাপ দিন কাজটি শেষ করতে।

চিৎকার-চেঁচামেচি করা
হয়তো কোনো কারণে খুব রেগে গেছেন বা বিরক্ত হয়ে গেছেন আপনি। মনে হচ্ছে, সবাইকে ইচ্ছেমতো বকাবকি করি বা চিৎকার করি। তবে এই চিৎকার-চেঁচামেচি আপনার ব্যক্তিত্বের ওপর বাজে প্রভাব ফেলবে। তাই অফিসে চেষ্টা করবেন এই কাজটি না করার।

বেশি কথা বলা
অনেকেই হয়তো একটু বেশি গল্প-গুজব করতে পছন্দ করেন। তবে এই বেশি কথা বলার স্বভাব কিন্তু আপনার ক্যারিয়ারের জন্য ক্ষতিকর হতে পারে। আর যত কম কথা বলবেন, সমস্যাও তত কম হবে। তাই অফিসে কম কথা বলুন।

পরনিন্দা
পরনিন্দা একটি বাজে অভ্যাস। এটি সহকর্মীর মনোবলে আঘাত করে। আর পরনিন্দাকারীর প্রতি অন্যদের বিশ্বাসও কমে যায়। তাই এই কাজটি করা থেকে বিরত থাকাই ভালো।

আর যদি কোনো সমস্যা বা বিষয় নিয়ে কথা বলতেই হয়, তাহলে খুব বিশ্বস্ত কোনো বন্ধু বা সহকর্মীর সঙ্গে শেয়ার করুন। তবে এ ক্ষেত্রেও সাবধানী হওয়া ভালো।

অপেশাদার পোশাক
অফিসের পরিবেশের সঙ্গে যায় না, এমন পোশাক না পরাই ভালো। এতে বিষয়টি দৃষ্টিকটু মনে হবে। অফিসে যোগ দেওয়ার আগেই জেনে নিতে পারেন এখানে কোনো ড্রেস কোড মেনে চলা হয় কি না।

অপেশাদার আচরণ
আপনি হয়তো ভাবছেন, আপনার আচরণ খুব পেশাদার। তবে আপনার সহকর্মী ভাবছেন, আপনার আচরণ পেশাদারদের মতো নয়। চাকরি ধরে রাখতে চাইলে এবং ভালো ক্যারিয়ার তৈরি করতে চাইলে এমন সব কাজ বাদ দিন, যেগুলো অপেশাদার।

এবিএন/সাদিক/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ
well-food