আপনি মানসিকভাবে দুর্বল বুঝবেন কীভাবে?

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ০৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০:০৪

প্রত্যেক মানুষেরই নিজের সম্পর্কে স্বচ্ছ ধারণা থাকা দরকার। আপনি যদি আসলেই দৃঢ় মানুষ হন তা হলে সেটি খুবই ভালো। কিন্তু মানসিকভাবে দুর্বল হলে নিজের সম্পর্কে জানুন এবং নিজের ক্ষতির কারণ হওয়া থেকে বিরত থাকুন। এসব লক্ষণ জেনে নিন, যা বোঝায় আপনি সত্যিই দৃঢ় মনের কিনা!

সব সময় রেগে যান : আপনি যেভাবে চান সেভাবে কোনো কাজ না হলে আপনি কী সব সময় রেগে যান? তা হলে ধরে নিতে হবে যে আপনি মানসিকভাবে দুর্বল। সব কিছুকে সহজভাবে নিতে শিখতে হবে আপনার এবং একটি সীমার মধ্যে থেকেই সমস্যা সমাধানের জন্য কাজ করতে হবে আপনাকে।

প্রতিশোধ পরায়ণ : আপনি কী নিজেকে সফল করার জন্য সব শক্তি নিঃশেষ করে দেন? মানুষ যখন নিরাপত্তাহীনতায় ভুগে শুধু তখনই সে আঘাত করে। কিন্তু কিছু মানুষ প্রতিশোধ পরায়ন হয়। যদি আপনি সব সময় নিরাপত্তাহীনতায় ভুগেন এবং নিজেকে প্রমাণ করতে চান তা হলে বুঝতে হবে যে, আপনার মানসিক অবস্থা স্থিতিশীল না।

অনুভূতির ওপর ভিত্তি করে সিদ্ধান্ত নেন : আপনি যদি সিদ্ধান্ত গ্রহণের ক্ষেত্রে আপনার অনুভূতিকে মূল্য দেন যেমন- ‘অফিসে যেতে ভালো লাগে না বলে আমি চাকরি ছেড়ে দেব’, তা হলে ধরে নিতে হবে যে আপনি মানসিকভাবে দুর্বল। বিচক্ষণ হোন, আবেগের ওপর ভিত্তি করে দ্রুত সিদ্ধান্ত নেবেন না।

আপনি অন্যের অনুভূতিকে ব্যবহার করেন : ‘যদি তুমি আমাকে ভালোবাসো তা হলে আমার জন্য তুমি এটা কর’- এ বাক্যটি আপনি কতবার ব্যবহার করেছেন?  আপনার সঙ্গী, বন্ধু বা পরিবারের সদস্যদের কাজে লাগানোর জন্য আপনার এ ধরনের মানসিকতাই আপনার মানসিক অস্থিতিশীলতার লক্ষণ।

ভালোবাসতে ভয় পান : ভালোবাসতে ভয় পাওয়া মানসিক অস্থিতিশীলতার লক্ষণ। আপনার হয়তো হৃদয় ভেঙেছে কিন্তু অতীতের দ্বারা বর্তমানকে ও ভবিষ্যতকে বিচার করবেন না। তাই বলা যায় যে, ভালোবাসতে ভয় পাওয়া উচিত নয়।

এবিএন/সাদিক/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ