কল্যাণপুরের জঙ্গি আস্তানায় অভিযান, অভিযোগ গঠন পেছাল

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৪ জানুয়ারি ২০২০, ১৫:৪৫

রাজধানীর কল্যাণপুরের জঙ্গি আস্তানায় অভিযানের মামলায় অভিযোগপত্রভুক্ত ১০ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের শুনানি পেছাল।

আজ মঙ্গলবার ঢাকার সন্ত্রাসবিরোধী বিশেষ ট্রাইব্যুনালে অভিযোগ গঠনের শুনানি হওয়ার কথা থাকলেও বিচারক মজিবুর রহমান ছুটিতে থাকায় শুনানির জন্য ১৪ জানুয়ারি নতুন তারিখ রেখেছেন এ আদালতের ভারপ্রাপ্ত বিচারক মনির কামাল।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ডিএমপির কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের পরিদর্শক মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম গত বছরের ৫ ডিসেম্বর ১০ জনকে আসামি করে আদালতে অভিযোগপত্র দেন।

মামলাটি বিচারের জন্য সন্ত্রাসবিরোধী বিশেষ ট্রাইব্যুনালে আসার পর ১৮ জুলাই বিচারক ওই অভিযোগপত্র গ্রহণ করে পলাতক এক আসামির বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন।

আসামিরা হলেন- রাকিকুল হাসান রিগ্যান (২১), সালাহ্ উদ্দিন কামরান (৩০), আব্দুর রউফ প্রধান (৬৩), আসলাম হোসেন ওরফে রাশেদ ওরফে আবু জাররা ওরফে র্যাশ  (২০), শরীফুল ইসলাম ওরফে খালেদ ওরফে সোলায়মান (২৫), মামুনুর রশিদ রিপন ওরফে মামুন (৩০), আজাদুল কবিরাজ ওরফে হার্টবিট (২৮), মুফতি মাওলানা আবুল কাশেম ওরফে বড় হুজুর (৬০), আব্দুস সবুর খান হাসান ওরফে সোহেল মাহফুজ ওরফে নাসরল্লা হক ওরফে মুসাফির ওরফে জয় ওরফে কুলমেন (৩৩) ও হাদিসুর রহমান সাগর (৪০)।

তাদের মধ্যে আজাদুল কবিরাজ পলাতক রয়েছেন। আব্দুর রউফ ও আবুল কাশেম আছেন জামিনে, বাকিরা কারাগারে।

২০১৬ সালের ২৬ জুলাই ভোরে কল্যাণপুরের ৫ নম্বর সড়কে জাহাজ বাড়ি নামে পরিচিত এক ভবনের পঞ্চম তলায় পুলিশের অভিযানে ৯ সন্দেহভাজন জঙ্গির মৃত্যু হয়। একজনকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় আটক করে পুলিশ, আরেকজন পালিয়ে যায়। এরা সবাই জেএমবি সদস্য বলে পুলিশের ভাষ্য।

ওই ঘটনায় মিরপুর মডেল থানায় সন্ত্রাসবিরোধী আইনের ৬ (২), ৮, ৯, ১০, ১২ ও ১৩ ধারায় ১০ জনকে আসামি করে এ মামলা করা হয়।

এবিএন/সাদিক/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ