রাজীবের হাত বিচ্ছিন্নের মামলার তদন্ত প্রতিবেদন ২২ মে

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৮ এপ্রিল ২০১৯, ১২:৪০

রাজধানীর কারওয়ান বাজারে দুই বাসের রেষারেষিতে তিতুমীর কলেজের স্নাতকের ছাত্র রাজীব হোসেনের ডান হাত বিচ্ছিন্ন হয়ে মৃত্যুর মামলায় তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের তারিখ আগামী ২২ মে ধার্য করেছেন আদালত।

আজ বৃহস্পতিবার মামলাটি তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য ধার্য ছিল। কিন্তু এদিন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা শাহবাগ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) ইদ্রিস আলী প্রতিবেদন দাখিল করতে পারেননি। এ জন্য ঢাকা মহানগর হাকিম সারাফুজ্জামান আনছারী প্রতিবেদন দাখিলের নতুন এ তারিখ ঠিক করেন। তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য এ পর্যন্ত ১০ বার সময় নিয়েছেন তদন্ত কর্মকর্তা।

মামলার আসামিরা হলেন-বিআরটিসি বাসের চালক ওয়াহিদ ও স্বজন বাসের চালক খোরশেদ। তারা বর্তমানে কারাগারে রয়েছেন।

গত বছরের ৩ এপ্রিল বিআরটিসির একটি দোতলা বাসের পেছনের ফটকে দাঁড়িয়ে গন্তব্যে যাচ্ছিলেন রাজধানীর মহাখালীর সরকারি তিতুমীর কলেজের স্নাতকের (বাণিজ্য) দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র রাজীব হোসেন (২১)। হাতটি বেরিয়েছিল সামান্য বাইরে। হঠাৎই পেছন থেকে স্বজন পরিবহনের একটি বাস বিআরটিসির বাসটিকে গা ঘেঁষে ওভারটেক করার সময় রাজীবের ডান হাত শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। দু-তিনজন পথচারী দ্রুত তাকে পান্থপথের শমরিতা হাসপাতালে নিয়ে যান। কিন্তু চিকিৎসকেরা চেষ্টা করেও বিচ্ছিন্ন হাতটি রাজীবের শরীরে আর জুড়ে দিতে পারেননি। ১৬ এপ্রিল দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান রাজীব।

এবিএন/সাদিক/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ
well-food