‘দুর্নীতির তদন্তে প্রয়োজন হলে সিনহাকে দেশে এনে জিজ্ঞাসাবাদ’

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ০৩ অক্টোবর ২০১৮, ১৭:৪১

ব্যারিস্টার নাজমুল হুদার দায়ের করা দুর্নীতি মামলার তদন্তে প্রয়োজনে সাবেক প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে বলে জানিয়েছেন দুর্নীতি দমন কমিশনের চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ।  

বুধবার (০৩ অক্টোবর) সকালে দুদক কার্যালয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি। জানান, এস কে সিনহার ছোট ভাই অনন্ত কুমার সিনহার বিরুদ্ধে অনুসন্ধান শুরু করেছে দুদক।

অর্থপাচার, নৈতিক স্খলনসহ সুনির্দিষ্ট ১১টি অভিযোগ মাথায় নিয়ে দেশ ছাড়েন সাবেক প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহা। তার বিরুদ্ধে ছোট ভাই অনন্ত কুমার সিনহার নামে যুক্তরাষ্ট্রের নিউজার্সিতে ২ কোটি ৩০ লাখ টাকা দিয়ে তিনতলা একটি বাড়ি কেনার খবরও প্রকাশিত হয়েছে সংবাদমাধ্যমে।

এদিকে ঘুষ চাওয়ার অভিযোগে তার বিরুদ্ধে গত ২৭ সেপ্টেম্বর রাজধানীর শাহবাগ থানায় মামলা করেছেন ব্যারিস্টার নাজমুল হুদা। মামলার বিবরণীতে বলা হয়েছে, রায় নিজের পক্ষে দিতে তিন কোটি ২৫ লাখ টাকা ঘুষ চেয়েছিলেন সিনহা। বুধবার এ বিষয়ে দুদক চেয়ারম্যান জানান, নাজমুল হুদার করা দুর্নীতির মামলার নথি দুদকে এসেছে। ইতিমধ্যে তদন্তও শুরু হয়েছে।

ইকবাল মাহমুদ বলেন, সাবেক প্রধান বিচারপতির বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে এবং আমাদের এখানে এসেছে। মামলার এফআইআর হলে কোথাও যাবে না। সরাসরি তদন্তে চলে যাবে। এর ফলাফল কি হবে তা আপনারা পরে জানতে পারবেন।

এসময় দুদক চেয়ারম্যন বলেন, দেশে ফিরিয়ে এনে এস কে সিনহাকে জিজ্ঞাসাবাদ করার নানা উপায় রয়েছে। তবে এটি তদন্ত কর্মকর্তার সিদ্ধান্তের ওপর নির্ভর করবে।

ইকবাল মাহমুদ বলেন, ‘আমাদের দেশের আইনে সব ব্যবস্থায় রয়েছে। বিদেশ থেকে আনা বা আনার প্রক্রিয়া করা। সেটা অনেক পরের বিষয়। সেটা বলতে পারবেন তদন্তকারী কর্মকর্তা।’

এস কে সিনহার ছোট ভাই অনন্ত কুমার সিনহার বিরুদ্ধেও অনুসন্ধান চলছে বলেও জানান দুদক চেয়ারম্যান।

এবিএন/মমিন/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ
well-food