‘মিয়ানমারে এখনো রোহিঙ্গাদের মানবাধিকার লঙ্ঘন করা হচ্ছে’

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১২:৩৬

মিয়ানমারের রাখাইনে এখনো রোহিঙ্গা মুসলমানদের বিরুদ্ধে মানবাধিকার লঙ্ঘন করা হচ্ছে। রোহিঙ্গারা সেখানে অমানবিক পরিস্থিতির সম্মুখীন। ইউরোপীয় ইউনিয়নের পররাষ্ট্রনীতি বিষয়ক প্রধান ফেডেরিকা মোগেরিনি এ কথা বলেছেন।

ফেডেরিকা মোগেরিনি মিয়ানমারে দুই সাংবাদিকের বিচার প্রক্রিয়া নিয়েও প্রশ্ন তোলেন। দণ্ডপ্রাপ্ত দুই সাংবাদিকের বিচার ন্যায়সঙ্গত হয়নি বলে তিনি জানান।

সম্প্রতি দুই সাংবাদিককে ৭ বছর করে কারাদণ্ড দিয়েছে মিয়ানমারের আদালত। রাষ্ট্রীয় গোপনীয়তা আইন লঙ্ঘনের অভিযোগে করা মামলায় তাদের এ কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। রয়টার্সের দুই সাংবাদিক ওয়া লোন এবং কিয়াও সোয়ে ও-কে গত ১২ ডিসেম্বর ইয়াঙ্গুনের কাছের একটি এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। দুজনই রাখাইনে মুসলমানদের ওপর মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর অভিযান সম্পর্কে তথ্য সংগ্রহ করছিলেন।

তারা বলেছেন, কেবল পেশাগত দায়িত্ব পালন করছিলেন তারা৷ রাখাইনের একটি গ্রামে গত বছরের সেপ্টেম্বরে ১০ জন রোহিঙ্গা মুসলমানকে হত্যার ঘটনা অনুসন্ধান করছিলেন তারা। সেখানে গিয়েছিলেন পুলিশের আমন্ত্রণে এবং নৈশভোজের সময় তাদের হাতে কিছু নথিপত্র তুলে দিয়েছিল পুলিশ৷ সেই রেস্তোরাঁ ত্যাগ করার পরপরই ওই নথিসহ তাদের গ্রেফতার করা হয়।

গত বছরের ২৫ আগস্ট রাখাইনে রোহিঙ্গা মুসলমানদের ওপর মিয়ানমার সেনাবাহিনী অভিযান শুরু করলে প্রায় ৭ লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে আসে।

এবিএন/সাদিক/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ