ব্যাংকে তারল্য সংকট নেই

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ০২ আগস্ট ২০১৮, ১২:৫৪

ঢাকা, ০২ আগস্ট, এবিনিউজ : অর্থ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভায় জানানো হয়েছে যে, বর্তমানে দেশের ব্যাংকগুলোয় কোনো তারল্য সংকট নেই।

সংসদ ভবনে বুধবার কমিটির সভাপতি ড. মো. আব্দুর রাজ্জাকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় এ কথা জানানো হয়। 

এতে বলা হয়, অতীতে কিছু ব্যাংকের ভুল ব্যবস্থাপনার কারণে সাময়িক তারল্য সংকট সৃষ্টি হয়েছিল যা বর্তমানে দূরীভুত হয়েছে।

কমিটির সদস্য মোস্তাফিজুর রহমান, মো. আব্দুল ওয়াদুদ, ফরহাদ হোসেন এবং শওকত চৌধুরী সভায় অংশগ্রহণ করেন।

এতে জানানো হয়, জিডিপি অনুপাতে দেশে মোট রাজস্ব আহরণ দক্ষিণ এশিয়াসহ বিশ্বের অন্যান্য দেশের তুলনায় সর্বনি¤œ এবং এ খাতে বিগত ১০ বছরেও উল্লেখযোগ্য কোনো অগ্রগতি হয়নি। এই সময়ে জিডিপি অনুপাতে রাজস্ব আহরণ গড়ে শতকরা ১০ দশমিক ৩ ভাগ, যা পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতে ১৯ দশমিক ৭ ভাগ. এমনকি নেপালেও এর পরিমাণ হচ্ছে ১৯ দশমিক ৬ ভাগ। উন্নত অর্থনীতির দেশে জিডিপি অনুপাতে রাজস্ব আহরণের এই পরিমাণ হচ্ছে গড়ে শতকরা ৩৫ দশমিক ৮ ভাগ।

সভায় বলা হয়, দেশের অগ্রগতিকে ত্বরান্বিত করতে রাজস্ব আয় বৃদ্ধির কোন বিকল্প নেই। অন্যান্য দেশের রাজস্ব আয় সংগ্রহ পদ্ধতি থেকে শিক্ষা নিয়ে প্রয়োজনে পাইলট প্রজেক্ট হাতে নিয়ে ভ্যাট ট্যাক্সের আওতা বাড়াতে হবে।

বীমা কোম্পানির বিরুদ্ধে বীমাদাবি নিষ্পত্তি না করার অভিযোগ সম্পর্কে বলা হয়, কমিটির পক্ষ থেকে জাতীয় দৈনিকে বিজ্ঞাপন দিয়ে প্রায় ৪শ অভিযোগ পাওয়া গেছে এবং এ নিয়ে গণশুনানির আয়োজন করা হবে।

সভায় ব্যাংকগুলোয় মাত্রাতিরিক্ত সুদ ও সার্ভিস চার্জের কারণে বিনিয়োগ বাধাগ্রস্ত হওয়ায় সুদের হার সিঙ্গেল ডিজিটে নামিয়ে আনার এবং ব্যাংকের ক্রেডিট কার্ডে উচ্চ সুদ ও গোপন চার্জের মাধ্যমে গ্রাহক ভোগান্তি কমানোর সুপারিশ করা হয়।

বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্ণর, অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সিনিয়র সচিবসহ মন্ত্রণালয় এবং সংসদ সচিবালয়ের সংশ্লিষ্ট। ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা সভায় উপস্থিত ছিলেন।
খবর বাসস

এবিএন/সাদিক/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ