মদনে ধর্ষণ মামলায় ধর্ষক গ্রেফতার

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৯:২৯

নেত্রকোনার মদনে ধর্ষণ মামলার অভিযোগে রিপন মিয়া (২৫) নামের এক ধর্ষককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গতকাল শনিবার রাতে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সদর থানা থেকে গ্রেফতার করে তাকে মদন থানায় নিয়ে আসা হয়।

 স্থানীয় সূত্রে জানা যায়,উপজেলার ফতেপুর ইউনিয়নের লাছারকান্দা গ্রামের কেনু মিয়ার ছেলে রিপন মিয়ার পরকীয়া করে একই ইউনিয়নের দেওয়ান পাড়া (গুয়াইসপুর) গ্রামের বিবাহিত এক নারীকে নিয়ে ঢাকায় পালিয়ে যায়।  সেখানে কোর্টে এফিডেভিট মূলে বিয়ে করে স্বামী স্ত্রী হিসাবে দুই মাস ঘর সংসার করে।

উভয়ের মধ্যে বনিবনা না হওয়ায় ওই নারী নেত্রকোনা কোর্টে প্রেমিকের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা দায়ের করেন। মামলাটি বিজ্ঞ আদালত আমলে নিয়ে মদন থানায় প্রয়োজণীয় ব্যবস্থা নেয়ার জন্য  প্রেরণ  করেন। আদালতের নির্দেশ ক্রমে শনিবার মদন থানায় মামলটি রেকড করা হয়। এরই প্রেক্ষিতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর থানা থেকে রিপন মিয়াকে গ্রেফতার করে শনিবার রাতে থানায় নিয়ে আসে।  

সংশ্লিষ্ট ইউপি চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম চৌধুরী জানান, রিপন মিয়ার পরকীয়ায় গুয়াইসপুর গ্রামের বিবাহিত ওই নারী ঘর ছেড়ে দুই মাস স্বামী-স্ত্রী হিসাবে ঢাকায় বসবাস করার খবর পেয়েছি। মেয়েটি যখন ছেলের বাবার বাড়িতে লাছারকান্দায় বিয়ের দাবিতে অনশন করছিল তখন বিষয়টি ছেলের বাবাকে থানায় জানাতে পরামর্শ দেই। এরই প্রেক্ষিতে পুলিশ ওই নারীকে থানায় নিয়ে যায় এবং রিপনের বিরুদ্ধে সে ধর্ষণ মামলা করে। পুলিশ রিপনকে গ্রেফতার করেছে বলে শুনেছি।

মদন থানার ওসি মোঃ রমিজুল হক জানান, ফতেপুর ইউনিয়নের বিবাহিত নারী  শনিবার মদন থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ (সংশোধনী ২০০৩) এর ৭/৯ (১) ধারায় অপহরন পূর্বক ধর্ষণ করার অপরাধে একটি মামলা দায়ের করেন। মামলার প্রেক্ষিতে শনিবার রাতে পুলিশ ব্রাহ্মণবাড়য়া থেকে রিপনকে গ্রেফতার করে। সোমবার তাকে নেত্রকোনা কোর্ট হাজতে প্রেরণ করা হবে।


এবিএন/তোফাজ্জল হোসেন/জসিম/তোহা

এই বিভাগের আরো সংবাদ