দেশকে মেধা শূন্য করতে এই হত্যাকান্ড : শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসে চসিক মেয়র

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯, ১৮:৩৯

শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের প্রতি বিনম্্র শ্রদ্ধা জানিয়েছেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব আ জ ম নাছির উদ্দীন। আজ শনিবার সকাল সাড়ে ৯ টায় সিটি মেয়র এর নেতৃত্বে চসিক কাউন্সিলর,কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা পাহাড়তলী বধ্যভূমিতে গিয়ে শহীদ বেদিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন। চসিক কাউন্সিলর মোহাম্মদ জহুরুল আলম জসিম,আলহাজ্ব মোহাম্মদ হিরণ, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সামসুদ্দোহা,সচিব মোহাম্মদ আবু শাহেদ চৌধুরীসহ কর্পোরেশনের কাউন্সিলর,কর্মকর্তারা এই ্সময় উপস্থিত ছিলেন।

পুস্পস্তবক অর্পণ শেষে এক সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে সিটি মেয়র বলেন, বাঙালি জাতিকে মেধাশূন্য করতে জাতির মেধাবী ব্যক্তিদের বেছে বেছে ১৪ ডিসেম্বর হত্যা করা হয়েছিল। পাকিস্তানী দোসরদের প্রধান লক্ষ্য ছিল জাতির মেধাবী সন্তানদের হত্যা করাই। তারা ভালোভাবে জানত যে,একটি দেশের সামগ্রিক মেধা ধ্বংস হয়ে গেলে সেই দেশের সকল উন্নয়নের অগ্রযাত্রা ব্যাহত হয়। ৭১ সালে মার্চ মাস থেকে ১৪ ডিসেম্বর পর্যন্ত পাকিস্তানি হানাদার বাহিনী এবং তাদের দোসর রাজাকার, আল-বদরদের নিয়ে বেছে বেছে এদেশের নেতৃত্বদানকারী ডাক্তার, প্রকৌশলী, শিক্ষক, সাংবাদিক, লেখক ও মুক্তিযোদ্ধাসহ হাজার হাজার মেধাবী সূর্য সন্তানদেরকে নির্বিচারে  হত্যা করেছে। এর কয়েকদিন পর ৩০লক্ষ শহীদ এবং ৩লক্ষ মা-বোনের ইজ্জতের বিনিময়ে ১৬ ডিসেম্বর ১৯৭১ সালে বাংলাদেশ স্বাধীন হয়। স্বাধীনতা পরবর্তীকালে ১৯৭৫ সালে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে দেশ পরিচালিত হয়  পাকিস্তানি ভাবধারায়। 

এ সময়ে মুক্তিযুদ্ধের সকল চিন্তা চেতনাকে ধুলিস্যাৎ করে দেয়া হয়। তিনি বলেন ২১ বছর পর মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় অধিষ্ঠিত হয়ে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় দেশ পরিচালনা করতে থাকে। ফলে এ প্রজন্মের সন্তানেরা মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস জানতে ও শিখতে শুরু করে। ফলে সবক্ষেত্রেই এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ। বাংলাদেশ এখন স্বল্প উন্নত দেশ থেকে উন্নয়নশীল দেশের মর্যাদা লাভ করেছে। ২০২১ সালে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী পালনের বছর। বাংলাদেশকে ক্ষুধা দারিদ্রমুক্ত উন্নত দেশে পরিণত করার দায়িত্ব হচ্ছে এ প্রজন্মের সন্তানদের। এসময় তিনি ওয়ার ক্রাইম ফ্যাক্টস ফাইন্ডিং কমিটির মাধ্যমে চিহ্নিত মহানগরের ৬১টি বধ্যভূমি সংরক্ষণে কর্পোরেশনের পক্ষ থেকে উদ্যোগ নেয়া হবে বলে তিনি উল্লেখ করেন।


এবিএন/জসিম/তোহা

এই বিভাগের আরো সংবাদ