বগুড়ায় তিন নকল ওষুধ কারখানার সন্ধান

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১২ ডিসেম্বর ২০১৯, ০০:০২

বগুড়ার আদমদীঘিতে তিনটি নকল ওষুধ তৈরির কারখানায় অভিযান চালিয়েছে র‌্যাব-১২। এ সময় বিপুল পরিমাণ নকল ওষুধসহ দুজন আটক হয়েছেন।

বুধবার (১১ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় উপজেলার অর্জুনগাড়ি গ্রামের ওই কারখানাগুলোতে অভিযান চালায় র‌্যাবের একটি বিশেষ দল।

 এ সময় কারখানা মালিক আনোয়ার হোসেন, তার ছোট ভাই আইনুল ইসলামকে আটক করেছে র‌্যাব। অভিযানে আদমদীঘি উপজেলা নির্বাহী অফিসার আবদুল্লাহ বিন রশিদ উপস্থিত ছিলেন।

র‌্যাব-১২ এর বগুড়া ক্যাম্প সূত্রে জানা যায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বুধবার সন্ধ্যায় বগুড়ার আদমদীঘি উপজেলার নশরতপুর ইউনিয়নের অর্জুনগাড়ি গ্রামে অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ সময় ওই গ্রামের মৃত আব্দুল মজিদের ছেলে আনোয়ার হোসেন, তার ভাই আইনুল হক এবং চাচা আলতাব মণ্ডলের বাড়িতে তিনটি নকল ওষুধ কারখানার সন্ধান পায়। কারখানায় বিপুল পরিমাণ ওষুধ, ওষুধ তৈরির সরঞ্জাম ও কাঁচামাল জব্দ করা হয়।

জব্দ করা ওষুধের মধ্যে রয়েছে- বিভিন্ন পেইন কিলার, জামবাক, ডকসিক্যাপ, ফিনিক্স, বিফেরেক্স, চায়না ম্যাজিক চক, ভারতীয় হারবাল, কিংডন, স্কিন কিউর, নিউ লাকি মলম, স্পেশাল বিশহরি, শাহ সুলতান ক্যাস্ফার লিকুইট, চায়না ড্রপ স্যালাইন, গ্রামীণ চক ও সুপাহিটসহ অন্যান্য ওষুধ।

র‌্যাব-১২ এর কোম্পানি কমান্ডার রওশন আলী জানান, নকল ওষুধের পরিমাণ অনেক। তবে সন্ধ্যা পর্যন্ত প্রায় ৭০ বস্তা প্যাকেটজাত ও দুই হাজার বোতলজাত ওষুধ জব্দ করা হয়েছে। নকল ওষুধ তৈরির কারখানার মালিকদের আটক করা হয়েছে।

তিনি বলেন, দীর্ঘ দিন ধরে চক্রটি বাড়িতে কারখানা করে নকল ওষুধ তৈরি করে আসছিল। জব্দ করা সব ওষুধ পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে।

বগুড়ার আদমদীঘি থানার ওসি জালাল উদ্দীন জানান, তিনি বিষয়টি জেনেছেন। তবে এ বিষয়ে এখন পর্যন্ত কোনো মামলা হয়নি।

এবিএন/শংকর রায়/জসিম/পিংকি

এই বিভাগের আরো সংবাদ