কুড়িগ্রামে ১০ হাজার মানুষ পানিবন্দী

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১২ জুলাই ২০১৯, ১১:০৭

কুড়িগ্রামে অবিরাম বর্ষণ ও উজানের ঢলে নদ-নদীতে কয়েকদিন যাবত পানি বাড়ছে। এতে করে নদ-নদী তীরবর্তী নিম্নাঞ্চলের ঘরবাড়িতে পানি প্রবেশ করায় পানিবন্দী হয়ে পড়েছে প্রায় ১০ হাজার মানুষ।

নিমজ্জিত হয়েছে নিচু এলাকার বীজতলা, ভুট্রা ও সবজির ক্ষেত। কুড়িগ্রাম সদর, ফুলবাড়ী, নাগেশ্বরী, রাজারহাট, উলিপুর, চিলমারী ও রৌমারী উপজেলার শতাধিক চরগ্রামের নিচু এলাকা প্লাবিত হয়েছে।

পানি দ্রুত গতিতে বাড়তে থাকায় দু’একদিনের মধ্যে ব্রহ্মপুত্রের পানি বিপদসীমা অতিক্রম করবে বলে জানিয়েছে স্থানীয় পানি উন্নয়ন বোর্ড। তবে সবগুলো নদ-নদীর পানি বিপদসীমার নিচে রয়েছে।

কুড়িগ্রাম পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো: আরিফুল ইসলাম জানান, আগামী ২৪ ঘন্টায় ব্রহ্মপুত্রের পানি এবার বিপদসীমা অতিক্রম করবে এবং বেশ কিছু এলাকা প্লাবিত হবে। তবে ব্যাপক বন্যার কোন আশংকা নেই। তিনি আরো জানান, ঝুঁকিপূর্ণ বাঁধগুলো নজরদারীর মধ্যে রাখা হয়েছে এবং ভাঙন রোধে প্রয়োজনীয় জিও ব্যাগ প্রস্তুত রাখা হয়েছে।

অন্যদিকে টানা বৃষ্টিতে জেলা শহরের চড়–য়াপাড়া, চর ভেলাকোপা, কলেজপাড়াসহ বিভিন্ন এলাকায় পানি নিশষ্কাশনের ব্যবস্থা না থাকায় জলা বদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। এসব এলাকার প্রায় শতাধিক পরিবার পনিবন্দী জীবন যাপন করছে।

এবিএন/শংকর রায়/জসিম/পিংকি

এই বিভাগের আরো সংবাদ