ভালুকায় কালবৈশাখী ঝড়ে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৮ মে ২০১৯, ১৭:৪৬

গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় ভালুকা উপজেলার হবিরবাড়ী ইউনিয়নের কয়েকটি গ্রামের উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া কাল বৈশাখী ঝড়ে বাড়ীঘর, গাছপালা সহ ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে।

আজ শনিবার সকালে ভালুকা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত হবিরবাড়ী, গাংগাটিয়া,পাড়াগাঁও, সিড়ির চালা, ঝালপাঝা সহ কয়েকটি গ্রাম পরিদর্শন করেন।

ঝড়ের তান্ডবে হবিরবাড়ী ঝালপাঝা সড়কের দুই দিকে অসংখ্য ঘরবাড়ী  গাছপালা ভেঙ্গে ৭/৮ টি পল্লী বিদ্যুতের খুটি ভেঙ্গে ফেলে দিয়েছে। ঝালপাজা গ্রামের কামরুল ও শরীকদের ৭/৮ ঘর, চেচুয়া নন্দীপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের টিনের চাল, সাংবাদিক জসীম উদ্দীনের একটি ঘর,শামছুল হকের ৪টি ঘর, নলুয়াকুড়ি গ্রামে কাদির ফকিরের বাড়ী, লবন কোঠা গ্রামের জুলহাস উদ্দীনের ৫ টিঘর, রাজ্জাকের ৪ টি ঘর, গাংগাটিয়া গ্রামে জসীম মিয়ার ছড়ি সহ ১৬শ কলাগাছ সম্পুর্ণ ফেলে দিয়েছে।

একই গ্রামে হাফেজ সেখ, আব্দুল আলীম, আব্দুস সামাদ, মিলন মিয়া, জজ মিয়া, আবুল কাসেম, আব্দুর রহমান, আঃ মোতালেব, হযরত আলী, আইয়ূব আলী সহ প্রায় দুই শতাধিক লোকের কাঁচা ঘরবাড়ী ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। একই গ্রামে মসজিদ সহ অসংখ্য ঘর বাড়ির চাল ঝড়ে উড়িয়ে নিয়ে গেছে। সারা এলাকায় বিদ্যুতের খুটি ভেঙ্গে তার ছিড়ে একাকার হওয়ায় শুক্রবার সন্ধ্যা হতে ওইসব গ্রামে বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ রয়েছে। এলাকার ক্ষতি গ্রস্ত লোকজন ঘরের চাল না থাকায় খোলা আকাশের নীচে অবস্থান করছেন।


এবিএন/জাহিদুল ইসলাম খান/জসিম/তোহা

এই বিভাগের আরো সংবাদ