এগিয়ে যাচ্ছে কালিয়াকৈরের সেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘মানবতার দেয়াল’

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৮ মে ২০১৯, ১৫:৩৯

গাজীপুরের কালিয়াকৈর পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ডের বোর্ডমিল এলাকায় সেচ্ছাসেবী কিছু তরুণদের প্রচেষ্টায় এক ব্যতিক্রমধর্মী উদ্যোগ নিয়েছে স্থানীয় কিছু তরুনরা। মোঃ মনির হোসেন বাবুর নেত্রিত্বে বিনামূল্যে পোশাক সর্বারহের মাধ্যমে ভিন্নমাত্রায় চালু করা হয়েছে ‘মানবতার দেয়াল’ নামে একটি সেচ্ছাসেবী সংগঠন। এছাড়া মাদক, সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদসহ নানা প্রকারের অসামাজিক ও অনৈতিক কার্যকলাপ হতে নিজেদেরকে দুরে রাখতে ইতিমধ্যে তারা গ্রহন করেছে নানা উদ্যোগ।



সেচ্ছাসেবী এ সংগঠনটি সেচ্ছায় রক্তদান কর্মসূচী, মাদক বিরোধী ক্যাম্পিয়ন ও খেলাধুলাসহ নানা রকম আয়োজনের মধ্যে দিয়ে চালিয়ে যাচ্ছে তাদের কার্যক্রম। ‘মানবতার দেয়াল’ এর মুল বিষয় হলো- গরীব-দুঃখি মানুষের পাশে দাড়িয়ে তাদের বিনামুল্যে বস্ত্রদান করা। যারা অভাবগ্রস্ত, পড়ার মত ভাল জামা-কাপড় নেই। ছেড়া জামা-কাপড় পড়ে থাকে তারা বিনামূল্যে এখান থেকে পোশাক সর্বারহ করতে পারবে।

সংগঠনটির পক্ষ থেকে এর উদ্যোক্তা মোঃ মনির হোসেন বাবু সমাজের বৃত্তবানদের প্রতি আহবান জানান, তারা যেন তাদের অব্যবহৃত ভাল পোষাক গুলি ফেলে না দিয়ে যদি এখানে দান করে হয়তো এতে অনেক গরীব-দুঃখি মানুষের অনেকটাই কাজে আসবে। আপনার অপ্রয়োজনীয় কাপড়গুলি আমাদের কাছে পৌছে দিতে পারেন বোর্ডমিল কাঠলতলা এলাকায়। প্রয়োজনে মোবাইল করতে পারেন এই নাম্বারে-০১৯৩৬-৭১৯০৭৮।

এরই ধারাবাহিকতায় মনির হোসেন বাবুর নেতৃত্বে এই মহান সেচ্ছাসেবী উদ্যোগে যারা নিরালস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন- মোঃ তুষার আহমেদ, মোঃ তুহিন, মোঃ শাকিল হোসেন, মোঃ শাহীন আলম, আতিক ইসলাম, রাহাত, এলিন, নয়ন মিয়া, মাসুম, রাশেদ, আমিনুল, কাউসার, সুমন, মেহেদি হাসান সুমন,ও রহিম মিয়া সহ আরো অনেকে।

তাদের ধারনা বাংলাদেশের প্রতিটি জেলায়, থানায় ও মহল্লায়, যদি এমন উদ্যোগ নেয়া হয় তাহলে যুবসমাজের মধ্যে অনেকটাই অপরাধ মনোভাব ও সন্ত্রাসী কার্যকলাপ কমে যাবে বলে তাদের আশা।

এ উদ্যোগের সাথে যদি সমাজের যারা বৃত্তবান আছে তারা পাশে দাড়ায় তাহলে ‘মানবতার দেয়াল’ নামে এই সংগঠনটি সাফল্যের সাথে এগিয়ে যাবে। ঢাকা সহ আসে পাশের অনেক জেলাগুলোতে এমন উদ্যোগ ইতিমধ্যে নেয়া হয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় কালিয়াকৈর পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ডের বোর্ডমিল কাঠলতলা এলাকায় এমন মহান উদ্যোগ ‘মানবতার দেয়াল’ ব্যাপকসাড়া পেয়েছে। এর সাথে সমাজের বৃত্তবানরা যদি সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেন তাহলে এই ‘মানবতার দেয়াল, আরো অনেক দুর এগিয়ে যাবে বলে আশাবাদী স্থানীয় তরুণরা।
 

এবিএন/আলমগীর হোসেন/জসিম/তোহা

এই বিভাগের আরো সংবাদ