হাওর এলাকার উন্নয়নে সরকার কাজ করছে: সমরায় মন্ত্রী

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২০ এপ্রিল ২০১৯, ২২:২৫ | আপডেট : ২০ এপ্রিল ২০১৯, ২২:৩১

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম বলেছেন, প্রত্যন্ত হাওর এলাকার মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে বিশেষ গুরুত্বসহকারে কাজ করে যাচ্ছে সরকার। ইতোমধ্যেই হাওরবাসীর নানামুখী সমস্যার সমাধানে সরকার বিভিন্ন পরিকল্পণা গ্রহণ করা হয়েছে।

আজ শনিবার দুপুর দুইটায় সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলাধীন মধ্যনগর থানা সংলগ্ন মাঠে ‘উবদাখালী ও কায়েতকান্দা-সুমেশ্বরী নদীর’ উপর দুইটি বড় ব্রীজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন উপলক্ষে মধ্যনগর থানা আ.লীগের উদ্যোগে আয়োজিত এক জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সকল ক্ষেত্রেই দেশ আজ এগিয়ে যাচ্ছে। বাঙ্গালী জাতি এখন আর ভিক্ষুকের জাতি নয়। প্রধানমন্ত্রী এ দেশকে সিঙ্গাপুর,হংকং ও থাইল্যান্ডের মতো উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত করার জন্য কাজ করে যাচ্ছেন। “আল্লাহ্র অস্তে আমাকে চারটা ভাত দেন” এ কথা বলার মতো দেশে আর কোনো মানুষ থাকবেনা।

সুনামগঞ্জ-১ আসনের সংসদ সদস্য মোয়াজ্জেম হোসেন রতনের সভাপতিত্বে অনুষ্টিত এ জনসভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য, সংরক্ষিত নারী আসনের সংসদ সদস্য এ্যাডভোকেট শামীমা শাহরিয়ার, সুনামগঞ্জ জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নূরুল হুদা মুকুট, পৌর মেয়র নাদের বখত, তাহিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান করুনা সিন্দু চৌধুরী, ধর্মপাশা উপজেলা চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হোসেন রোকন প্রমূখ।

মন্ত্রী আরো বলেন, জননেত্রী শেখ হাসিনা হাওরের মানুষকে নিয়ে স্বপ্ন দেখেন। আর তাঁরই নির্দেশে সরকার হাওর এলাকার উন্নয়নে ব্রীজ, কালভার্ট ও রাস্তা-ঘাট উন্নয়নসহ নানা পরিকল্পণা গ্রহণের মাধ্যমে তা বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে। এমনকি হাওর এলাকাকে যোগপযোগী করে শহরের আদলে গড়ে তোলার লক্ষেই আ.লীগ সরকার কাজ করছে। তিনি আরো বলেন, মধ্যনগর থানাকে উপজেলায় রুপান্তরিত করার  কাজও অনেক দূর এগিয়ে যাচ্ছে এবং খুব শীঘ্রই মধ্যনগরকে উপজেলা ঘোষণা করা হবে বলেও তিনি সভায় উপস্থিত মধ্যনগরবাসীকে আশ্বস্ত করেন।

সভা শেষে পাশের তাহিরপুর উপজেলা সদর ইউপি চেয়ারম্যান, উপজেলা বিএনপির সহ সভাপতি ও উপজেলা যুবদলের আহবায়ক বোরহান উদ্দিন মন্ত্রীর হাতে ফুলের তোড়া দিয়ে আ.লীগে যোগদান করেন।
         
এবিএন/মো. ইমাম হোসেন/জসিম/রাজ্জাক

এই বিভাগের আরো সংবাদ
well-food