চট্টগ্রামের লোহাগাড়ায় জাল ভোট দেওয়ার চেষ্টাকালে ৪ নারী আটক

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ৩১ মার্চ ২০১৯, ১৭:১১

চট্টগ্রামের লোহাগাড়ায় অনুষ্ঠিত পঞ্চম ধাপের উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে জাল ভোট দিতে এসে ইউএনও রুহুল আমিনের হাতে ধরা পড়েছে চার নারী।

আজ রবিবার দুপুর সোয়া ২টার সময় উপজেলার পুটিবিলা ইউনিয়নের গৌরস্থান আখতারুল উলুম দাখিল মাদ্রাসা কেন্দ্র থেকে তাদের আটক করা হয়। তাদের প্রত্যেককে ১ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করে মুচলেখা নিয়ে তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়েছে বলে জানা গেছে।

জাল ভোট দেয়ার চেষ্টায় আটক চার নারীর মধ্যে রয়েছে উপজেলার পুটিবিলা ইউনিয়নের গৌরস্থানের বাসিন্দা তাজুল ইসলামের স্ত্রী খুরশিদা বেগম, রাশেদ চৌধুরীর স্ত্রী খুরশিদা আক্তার,আব্দুল মালেকের স্ত্রী রেখা আক্তার ও কামালের স্ত্রী আনোয়ারা বেগম।

হাটহাজারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. রুহুল আমিন জানান, ভোট গ্রহণ শেষ হওয়ার ঠিক ২ ঘন্টা আগে ওই কেন্দ্রে ভোট দিতে আসা চার নারীকে সন্দেহ হয়। এসময় তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে তারা স্বামী ও পিতার নাম সঠিক করে বলতে পারছেনা।

পরে কেউ কেউ কেঁদে আবার কেউ মুচকি হেঁসে তাদের ভ’ল হয়েছে স্বীকার করে এবারের মত ক্ষমা করে দেওয়ার জন্য বলেন। তাদের প্রত্যেককে প্রথম বারের মত সতর্ক করে দিয়ে মুচলেখা নিয়ে এক হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়। তিনি উপজেলায় ভোট গ্রহণ সুষ্ঠ ও নির্বিঘ্ন রাখতে সবসময় প্রস্তুত রয়েছে বলে জানান।

উল্লেখ্য ৫ম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ৩য় ধাপে লোহাগাড়া উপজেলা পরিষদের নির্বাচন গত ২৪ মার্চ অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও ব্যলট পেপার জটিলতায় তা স্থগিত করে আজ ৩১ মার্চ অনুষ্ঠিত হবার কথা জানিয়েছেন চট্টগ্রাম জেলা সিনিয়র নির্বাচন অফিসার মনির হোসেন খান। নির্ধারিত তারিখ মতো আজ রবিবার সকাল থেকে শুরু হয় ভোটগ্রহণ।

উপজেলায় চেয়ারম্যান প্রার্থী পদে তিনজন, ভাইস চেয়ারম্যান পুরুষ পদে ৪ জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্ধীতা করছেন। উপজেলায় এক লাখ ৯০ হাজার ৪৭২ জন ভোটারের ভোট সংগ্রহ করতে ৬১টি ভোটকেন্দ্রের ৫০৯টি কক্ষ নির্ধারন হয়।

জেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা যায়, উপজেলায় ৬১ জন প্রিসাইডিং, ৫০৯ জন সহকারি প্রিসাইডিং এবং এক হাজার ১৮ জন পোলিং কর্মকর্তা ভোটগ্রহণের দায়িত্ব পালন করছেন। এছাড়া ভোট কেন্দ্র নিরাপত্তায় পর্যাপ্ত আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মোতায়েনের পাশাপাশি নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটগণ নির্বাচনের সার্বিক মনিটরিং করছেন।
 

এবিএন/রাজীব সেন প্রিন্স/জসিম/তোহা

এই বিভাগের আরো সংবাদ
well-food