ধুনটে নারী ইউপি সদস্য হত্যার ঘটনায় মামলা

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১১:৪২

বগুড়ার ধুনট উপজেলার মথুরাপুর ইউনিয়ন পরিষদের মহিলা সদস্য রেশমা খাতুনকে (৩৮) হত্যার ঘটনায় ধুনট থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।

বুধবার (২২ সেপ্টেম্বর) রাতে নিহতের ছোট ভাই মিজানুর রহমান বাদী হয়ে ধুনট থানায় অজ্ঞাতনামা আসামী করে ধুনট থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

স্থানীয়সূত্রে জানা গেছে, বগুড়া জেলার ধুনট উপজেলার মথুরাপুর ইউনিয়নের গোবিন্দপুর গ্রামের ভ্যান চালক ফরিদ উদ্দিনের সঙ্গে গত ২০ বছর পূর্বে সিরাজগঞ্জ জেলার রায়গঞ্জ উপজেলার ধানগড়া এলাকার আলতাফ হোসেনের মেয়ে রেশমা খাতুনের বিয়ে হয়। তাদের দাম্পত্য জীবনে ১০ শ্রেণীতে পড়–য়া এক ছেলে ও ৭ম শ্রেণীতে পড়–য়া এক মেয়ে রয়েছে। ২০১৬ সালে মথুরাপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ৭,৮,৯নং সংরক্ষিত আসনে নারী ইউপি সদস্য নির্বাচিত হয় রেশমা খাতুন।

এদিকে ১৮ সেপ্টেম্বর হঠাৎ করেই নিখোঁজ হয়ে যায় রেশমা খাতুন। কিন্তু এঘটনায় গত ৫ দিনেও ধুনট থানায় কোন জিডি বা অভিযোগ করেনি তার স্বামী বা স্বজনেরা।

নিখোঁজের একপর্যায়ে বুধবার (২২ সেপ্টেম্বর) স্বামীর বাড়ির অদূরে একই ইউনিয়নের কুঁড়িগাতি গ্রামের বস ইটভাটা নামক স্থানের একটি ধান ক্ষেত থেকে ক্ষত-বিক্ষত অবস্থায় ইউপি সদস্য রেশমা আকতারের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।        

ধুনট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কৃপা সিন্ধু বালা জানান, ইউপি সদস্য রেশমা খাতুন গত ৫দিন আগে নিখোঁজ হয়। কিন্তু এ বিষয়ে এর আগে ধুনট থানায় কেউ অভিযোগ করেনি। হত্যাকান্ডের বিষয়টি রহস্যজনক। এ ঘটনায় বুধবার রাতে নিহতের ছোট ভাই বাদী হয়ে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।

পুলিশ এই হত্যাকান্ডের রহস্য উদঘাটন উদঘাটন ও আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা করছে বলেও জানান তিনি।

এবিএন/ইমরান হোসেন/গালিব/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ
ksrm