logo
রবিবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৭
bijoy
  • হোম
  • আন্তর্জাতিক
  • ‘যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান পরিবর্তনের ফলে মিয়ানমারের ওপর নিষেধাজ্ঞা আসতে পারে’

‘যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান পরিবর্তনের ফলে মিয়ানমারের ওপর নিষেধাজ্ঞা আসতে পারে’

‘যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান পরিবর্তনের ফলে মিয়ানমারের ওপর নিষেধাজ্ঞা আসতে পারে’

ঢাকা, ২৩ নভেম্বর, এবিনিউজ: মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ট্রাম্প প্রশাসন মিয়ানমারের রাখাইন প্রদেশে রোহিঙ্গাদের ওপর পরিচালিত নৃশংসতা প্রশ্নে আগের অবস্থান পাল্টানোর ফলে রোহিঙ্গা নিধনের সঙ্গে জড়িত মিয়ানমার সেনাবাহিনীর কমান্ডারদের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা আরোপের পথ সুগম হলো বলে নিউইয়র্ক টাইমসে মন্তব্য করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসন।

তিনি বুধবার যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র দফতরের এক বিবৃতিতে তিনি একথা কথা বলেন।

নিউইয়র্ক টাইমস জানায়, মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসন একে ‘জাতিগত নিধনযজ্ঞ’ হিসেবে আখ্যায়িত করে বলেছেন, রাখাইনের উত্তরাঞ্চলে উদ্ভূত পরিস্থিতির কারণে প্রায় ৬ লাখ রোহিঙ্গা সংখ্যালঘু সম্প্রদায় বাস্তুচ্যুত হয়ে প্রতিবেশী বাংলাদেশে শরণার্থী হয়েছে। এটা জাতিগত নিধনযজ্ঞ।
টিলারসন মিয়ানমার সামরিক বাহিনীর কর্মকা-ের দ্ব্যর্থহীন সমালোচনা করে বলেন, যুক্তরাষ্ট্র ‘টার্গেটেড’ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করার প্রচেষ্টা চালাবে।

রেক্স টিলারসন বর্তমান সংকট সূত্রপাতে নিরাপত্তা বাহিনীর ওপর রোহিঙ্গা মিলিশিয়াদের হামলার কথা স্বীকার করে বলেন, কোনো উসকানিই এই লোমহর্ষক নৃশংসতাকে যৌক্তিকতা দিতে পারে না।

এ বছরের ২৫ আগস্ট রাখাইনে পুলিশ ফাঁড়িতে হামলার পর রোহিঙ্গা মুসলিমদের বিরুদ্ধে সামরিক অভিযান জোরদার করে মিয়ানমার। এ অভিযানের পর ৬ লক্ষাধিক রোহিঙ্গা পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে।

জাতিসংঘ মিয়ানমারের বিরুদ্ধে জাতিগত নিধনযজ্ঞের অভিযোগ এনেছে। বিভিন্ন মানবাধিকার সংস্থা বলছে, রোহিঙ্গারা মানবতাবিরোধী অপরাধের শিকার হচ্ছে। তবে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের কঠোর সমালোচনার মুখে মিয়ানমারের পাশে দাঁড়িয়েছে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের দুই প্রভাবশালী সদস্য চীন ও রাশিয়া। বাসস।
 

এবিএন/মমিন/জসিম

প্রধান শিরোনাম

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত