logo
সোমবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০১৬
 
 
গুজরাটে নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিলেন বিজয় রূপানি
গুজরাটে নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিলেন বিজয় রূপানি
গুজরাটে নয়া মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রূপানি

ঢাকা, ০৭ আগস্ট, এবিনিউজ : ভারতের বিজেপি শাসিত গুজরাটে নয়া মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিলেন বিজয় রূপানি। উপ-মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন নীতিন প্যাটেল।

আজ রবিবার গান্ধীনগরে মুখ্যমন্ত্রী এবং তার মন্ত্রিসভার সদস্যদের শপথ বাক্য পাঠ করান গভর্নর ওমপ্রকাশ কোহলি। জৈন বেনিয়া সম্প্রদায়ের বিজয় রূপানি রাজ্যের ১৬তম মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে অধিষ্ঠিত হলেন। রূপানি মন্ত্রী সভায় মোট ২৫ জন সদস্যের মধ্যে প্যাটেল/পাটিদার সম্প্রদায়ের ৮ জন মন্ত্রী হয়েছেন।   

এদিকে, তাৎপর্যপূর্ণভাবে রাজ্যের বিদায়ী মুখ্যমন্ত্রী আনন্দিবেন প্যাটেল মন্ত্রিসভার ৯ মন্ত্রীকে বিজয় রূপানির নয়া মন্ত্রিসভায় ঠাই দেয়া হয়নি। আজ শপথ অনুষ্ঠানে বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ, অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি এবং বিজেপি’র সিনিয়র নেতা এল কে আদবানী উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, বিজয় রূপানি এমন এক সময় মুখ্যমন্ত্রীর আসনে বসলেন, যেসময় রাজ্যটিতে প্যাটেল/পাটিদাররা সংরক্ষণ আন্দোলন চালাচ্ছেন এবং দলিতরা রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলন শুরু করেছেন। অন্যদিকে, অরবিন্দ কেজরিওয়ালের আম আদমি পার্টিও গুজরাটে রাজনৈতিক তৎপরতা শুরু করেছে।

তাছাড়া বিদায়ী মুখ্যমন্ত্রী আনন্দিবেন প্যাটেল এবং তার অনুগামীরা বিজয় রূপানির অভিষেককে ভালোভাবে মেনে নেননি। সব মিলিয়ে কার্যত রূপানিকে কাঁটার মুকুট পরানো হল বলে মনে করা হচ্ছে। যদিও ভিন্ন মতও রয়েছে। সেটি হল, বিজয় রূপানিকে সামনে রেখে গুজরাটের আসল পাঠ সামলাবেন প্রতাপশালী বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ নিজেই। এক্ষেত্রেও অবশ্য রাজ্যে আসন্ন নির্বাচনে কথিত অমিত-বিজয় জুটি অমিত বিক্রমে দলের বিজয় অক্ষুণ্ন রাখতে পারবেন কী না সেই প্রশ্ন এখন প্রকট হয়ে দেখা দিয়েছে। কারণ, আরএসএসের জরিপেই রাজ্যটিতে বিজেপি’র পরাজয়ের আলামত দেখা দিয়েছে।

রাজ্যটিতে গত বুধবার মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে ইস্তফা দেন আনন্দিবেন প্যাটেল। এরপরেই বিজেপি’র শীর্ষ নেতারা শুক্রবার এক বৈঠকে বসে বিজেপি সভাপতি অমিত শাহের একান্ত অনুগামী বলে পরিচিত বিজয় রূপানিকে নয়া মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে বাছাই করেন।

এবিএন/রবি-২য়/আন্তর্জাতিক/ডেস্ক/জনি/মুস্তাফিজ/জেডি

প্রধান শিরোনাম

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত